রবিবার, ০৪ ডিসেম্বর, ২০১৬, ২০ অগ্রাহায়ণ ১৪২৩

‘আইসিটিতে রফতানি ৪শ’ মিলিয়ন ডলার’

নিজস্ব প্রতিবেদক | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ১৬ জুন ২০১৬, বৃহস্পতিবার ০৪:০৫ পিএম

‘আইসিটিতে রফতানি ৪শ’ মিলিয়ন ডলার’

গত ৭ বছরে তথ্য-প্রযুক্তি খাতে রফতানির পরিমাণ ২৬ মিলিয়ন ডলার থেকে ৪শ’ মিলিয়ন ডলারে উন্নীত হয়েছে বলে জানিয়েছেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক।

তিনি বলেন, ‘দেশে ই-কমার্স ব্যবস্থা জনপ্রিয় করার জন্য প্রচলিত ব্যবসায়িক কার্যক্রমের আওতায় নিয়ে আসা জরুরী। পুরোনো ঢাকায় শতবছর যাবৎ পরিচালিত ব্যবসায়িক কর্মকান্ডকে যদি ই-কমার্সের আওতায় নিয়ে আসা যায়,তাহলে কর্মঘন্টা বাঁচানোর পাশাপাশি ব্যবসায় ব্যয় হ্রাস পাবে।’

রোববার (৫ জুন) ঢাকা চেম্বার অডিটোরিয়ামে পাইকারী ও ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীদের ই-কমার্স ব্যবসায় সম্ভাবনা ও সচেতনতা তৈরি’ বিষয়ক এক সেমিনারে তিনি এসব কথা বলেন।

ঢাকা চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি (ডিসিসিআই) সেমিনারের আয়োজন করে।

ডিসিসিআই সভাপতি হোসেন খালেদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে ডাচ্-বাংলা ব্যাংকের ডিএমডি আবুল কাশেম মোঃ শিরিন, ই-ক্যাবের সভাপতি রাজিব আহমেদ, বেসিস সভাপতি শামিম আহসান, ডিসিসিআই পরিচালক রিয়াদ হোসেন প্রমূখ বক্তব্য রাখেন।

ডিসিসিআই টেলিকম ও আইসিটি স্ট্যান্ডিং কমিটির আহবায়ক সৈয়দ আলমাস কবির সেমিনারে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, আইসিটি খাতের সুষ্ঠ বিকাশের লক্ষ্যে সংশ্লিষ্ট সকল স্টেকহোল্ডারদের মতামতের ভিত্তিতে শীঘ্রই একটি নীতিমালা প্রণয়নের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।বর্তমান সরকার দেশে ই-গভার্নেন্স চালুর জন্য বদ্ধ পরিকর।তিনি ই-কমার্স ব্যবস্থা চালুর জন্য ভোক্তা ও ক্রেতার মধ্যকার আস্থা অর্জনের উপর গুরুত্বারোপ করেন।

ডিসিসিআই সভাপতি হোসেন খালেদ বলেন, তথ্য-প্রযুক্তি খাত কে অগ্রাধিকার প্রদান করার ফলে তথ্য-প্রযুক্তি খাতভিত্তিক বিভিন্ন সেবাসমূহ যেমন মোবাইল মানি ট্রান্সফার, শিক্ষা, স্বাস্থ্য, কৃষি, বাণিজ্য ইত্যাদি কার্যকারীতা প্রতিনিয়ত বৃদ্ধি পাচ্ছে। এখাত হতে আগামী ২০২১ সাল নাগাদ ৫ বিলিয়ন ডলার রপ্তানি আয় অর্জনের সুযোগ রয়েছে বলে তিনি উল্লেখ করেন।

সোনালীনিউজ/ঢাকা/আকন

add-sm
Sonali Tissue
রবিবার, ০৪ ডিসেম্বর, ২০১৬, ২০ অগ্রাহায়ণ ১৪২৩