সোমবার, ২২ অক্টোবর, ২০১৮, ৬ কার্তিক ১৪২৫

উড়িষ্যা-অন্ধ্র উপকূলে আঘাত হেনেছে তিতলি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ১১ অক্টোবর ২০১৮, বৃহস্পতিবার ১০:০২ এএম

উড়িষ্যা-অন্ধ্র উপকূলে আঘাত হেনেছে তিতলি

ঢাকা: ভারতের উড়িষ্যা ও অন্ধ্র প্রদেশের উপকূলীয় এলাকায় আঘাত হেনেছে বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড় ‘তিতলি’। এসময় এর বাতাসের গতিবেগ রেকর্ড হয়েছে ঘণ্টায় সর্বোচ্চ ১৬৫ কিলোমিটার পর্যন্ত। ঘূর্ণিঝড় আঘাত হানতেই অন্ধ্র প্রদেশের উত্তরাঞ্চল ও উড়িষ্যার দক্ষিণাঞ্চলে ভূমিধসের খবর পাওয়া গেছে। তবে তাৎক্ষণিকভাবে কোনো হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি।

প্রসঙ্গত ‘তিতলি’একটি হিন্দি শব্দ যার বাংলা অর্থ প্রজাপতি।

বৃহস্পতিবার স্থানীয় সময় ভোর সাড়ে পাঁচটার দিকে এই ঘূর্ণিঝড় ভারতের ওই দুই রাজ্যে আছড়ে পড়ে।

স্থানীয় আবহাওয়া দপ্তর জানিয়েছে, বঙ্গোপসাগরের উপরে ঘোরাফেরা করা গভীর নিম্নচাপটি শক্তি বাড়িয়ে ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হয়েছে। অন্ধ্র প্রদেশের শ্রীকাকুলামে আঘাত হানার সময় ‘তিতলি’র গতিবেগ ছিল ঘণ্টা ১৪০ থেকে ১৬০ কিলোমিটার। উত্তরের দিকে এসে উড়িষ্যায় আছড়ে পড়ার সময় এর তীব্রতা কিছুটা কমে যায়। তখন এর গতিবেগ ছিল ঘণ্টায় ১০২ কিলোমিটার।

তিতলির আঘাতে দুই রাজ্যে প্রচুর ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে জানা গেছে। প্রচণ্ড বাতাস ও ভারী বৃষ্টিপাতের ফলে উড়িষ্যার ৫ জেলায় ভূমিধস দেখা দিয়েছে। ভেঙে প্রড়েছে বহু গাছপালা ও ঘরবাড়ি। ব্যাহত হচ্ছে সড়ক, রেল ও বিমান যোগাযোগ।

এর আগে উড়িষ্যার মুখ্যমন্ত্রী মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টনায়কের নির্দেশে বুধবার রাজ্যের উপকূলীয় ৫ জেলার ৩ লাখের বেশি লোকজনকে সরিয়ে আনা হয়েছে। বন্ধ রয়েছে সেখানকার সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। ঘূর্ণিঝড়ের কারণে বুধবার রাতে ইন্ডিগো এয়ারলাইন্স তাদের কলকাতা থেকে ভুবনেশ্বরগামী সমকল ফ্লাইট বাতিল করেছে।

এদিকে বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তর ‘তিতলি’র কারণে চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, মংলা ও পায়রা সমুদ্র বন্দর সমূহকে চার নম্বর স্থানীয় হুঁশিয়ারি সংকেত দেখিয়ে যাওয়ার নির্দেশ দিয়েছে।

বৈরি আবহাওয়ার কারণে নিরাপত্তার জন্য অভ্যন্তরীণ রুটে নৌযান চলাচল বন্ধ করে দিয়েছে সরকার। ‘তিতলি’র প্রভাবে ঢাকাসহ দেশের দক্ষিণাঞ্চলে বৃষ্টি হচ্ছে।


সোনালীনিউজ/ঢাকা/আকন

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Get it on google play Get it on apple store
Sonali Tissue