শনিবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৬, ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৩

তুরস্কে পুলিশ প্রধান কার্যালয়ে হামলা

আপডেট: ১৬ জুন ২০১৬, বৃহস্পতিবার ০৩:৪৩ পিএম

তুরস্কে পুলিশ প্রধান কার্যালয়ে হামলা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
তুরস্কের দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলীয় দিয়ারবাকির প্রদেশের সিনার জেলা পুলিশের সদরদপ্তরে এক গাড়িবোমা হামলায় পাঁচজন নিহত হয়েছেন। হামলায় আরো অন্তত ৩৬ জন আহত হয়েছেন বলে স্থানীয় গণমাধ্যমের বরাতে বৃহস্পতিবার জানিয়েছে বিবিসি। নিহতদের মধ্যে এক নারী ও একটি শিশু রয়েছে বলে জানা গেছে। আরো হতাহতের খোঁজে ধ্বংসস্তূপে তল্লাশি চালাচ্ছেন উদ্ধারকারীরা।

তুর্কি কর্মকর্তারা হামলার জন্য কুর্দিস্তান ওয়ার্কার্স পার্টিকে (পিকেকে) দায়ি করলেও শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত কোনো গোষ্ঠী হামলার দায় স্বীকার করেনি।

পিকেকে-র তৎপরতা মূলত তুরস্কের কুর্দি প্রধান দক্ষিণ-পূর্ব প্রদেশগুলোতেই সীমাবদ্ধ।পুলিশের দপ্তরের প্রবেশ পথে বোমাটির বিস্ফোরণ ঘটানো হয়েছে বলে জানিয়েছে তুর্কি গণমাধ্যম। বিস্ফোরণে আশপাশের আবাসিক ভবনগুলোও ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে।সাম্প্রতিক মাসগুলোতে দিয়ারবাকির প্রদেশে পিকেকে বিচ্ছিন্নতাবাদীদের সঙ্গে তুর্কি সেনাবাহিনীর প্রবল সংঘাতের ঘটনা ঘটেছে। গেল বছর দিয়ারবাকির শহরসহ দক্ষিণ-পূর্ব তুরস্কের বেশ কয়েকটি এলাকায় নিরাপত্তা অভিযানের অংশ হিসেবে সান্ধ্যআইন জারি করেছিল কর্তৃপক্ষ। নিরাপত্তা অভিযানের সময় পূর্বাঞ্চলে এক বোমা বিস্ফোরণে ১৬ সেনা নিহত এবং বিদ্রোহীদের চোরাগোপ্তা হামলায় ১৪ জন পুলিশ কর্মকর্তা নিহত হয়েছিলেন।জুলাইতে পিকেকে-র ঘাঁটিতে তুর্কি সামরিক বাহিনীর বিমান হামলার মধ্য দিয়ে দুপক্ষের মধ্যে চলমান যুদ্ধবিরতির অবসান ঘটে।

এরপর থেকে তুর্কি যুদ্ধবিমানগুলো উত্তর ইরাকে পিকেকে-র ঘাঁটিগুলোতে নিয়মিত বোমা হামলা চালাতে শুরু করে, পাশপাশি দেশটির সেনাবাহিনী পিকেকে বিদ্রোহীদের বিরুদ্ধে স্থল অভিযান শুরু করে।

সোনালীনিউজ/ঢাকা/আকন

add-sm
Sonali Tissue
শনিবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৬, ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৩