শনিবার, ০৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১৯ অগ্রাহায়ণ ১৪২৩

বিরতি কাটিয়ে ফিরছেন আঁচল

বিনোদন প্রতিবেদক | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ১৬ জুন ২০১৬, বৃহস্পতিবার ০৪:০৫ পিএম

বিরতি কাটিয়ে ফিরছেন আঁচল

চলচ্চিত্রে একটা সময় যারা দাপটের সঙ্গে অভিনয় করেছেন তাদের মধ্যে অনেকেই আজ নিয়মিত কাজ করছেন না। তেমনি এক মুখ নায়িকা আঁচল। চলচ্চিত্র ক্যারিয়ারের শুরুর দিকে যেভাবে ব্যস্ত সময় কাটিয়েছিলেন তেমন ব্যস্ততা এখন আর নেই তার। বেশ কয়েক মাস বিরতির পর সম্প্রতি মাত্র দুটি নতুন ছবির কাজ করছেন তিনি। ছবি দুটি হচ্ছে তারেক শিকদারের পরিচালনায় ‘দাগ’ ও হিমেল আশরাফের পরিচালনায় ‘সুলতানা বিবিয়ানা’।

এ প্রসঙ্গে আঁচল বলেন, এখন তো আগের মতো কোনো তারকা চলচ্চিত্রে তেমন ব্যস্ত নেই। পেশাদার প্রযোজক কেউ আর নেই চলচ্চিত্রে। অনেকে ব্যবসা পরিবর্তনও করে ফেলেছেন। আমি সম্প্রতি হিমেল আশরাফের পরিচালনায় ‘সুলতানা বিবিয়ানা’ ছবির বেশ কিছু অংশের কাজ এফডিসিতে করেছি। এখন শুধু ডাবিং বাকি রয়েছে। এ ছবির গল্পটি দর্শকরা পছন্দ করবেন বলে আশা করছি। বাপ্পি আর আমার এ ছবির বাইরে শামিম আহমেদ রনির ‘মেন্টাল’ ছবিটি এবারের ঈদে মুক্তি পাওয়ার কথা জেনেছি। এ ছবিতে আমার সহশিল্পী হিসেবে কাজ করেছেন শাকিব খান। আঁচল এরই মধ্যে শাকিব খান, বাপ্পি চৌধুরী, আরিফিন শুভ, ইমনসহ অনেকের সঙ্গে কাজ করেছেন। তবে সবচেয়ে বেশি ছবি করেছেন বাপ্পি চৌধুরীর সঙ্গে। এর কারণ হিসেবে তিনি জানান, বাপ্পির সঙ্গে তার পর্দার যে কেমিস্ট্রি তা দর্শকরা বেশ উপভোগ করেন। তাই তার সঙ্গে জুটি হয়ে কাজ করেছেন তিনি। এরই মধ্যে সিলেটে তারেক শিকদার পরিচালিত ‘দাগ’ ছবির কাজ করেছেন এ অভিনেত্রী। এ ছবিটি নিয়ে আঁচল বলেন, এতে আমার চরিত্রের নাম নাবিলা। ভালোবাসার মানুষকে ঘিরে দুই সৎ বোনের কাহিনী রয়েছে এ ছবিতে। এতে আমি একটু গুন্ডা প্রকৃতির মেয়ে।

অন্যদিকে, এ ছবিতে আমার বড় বোনের চরিত্রে অভিনয় করছেন বিদ্যা সিনহা মিম আপু। বেশ ভালো হয়েছে কাজটি। আরও কিছু দৃশ্যের কাজ বাকি রয়েছে আমার। ‘দাগ’ ছবির গল্প লিখেছেন কামাল আহমেদ আর সংলাপ ও চিত্রনাট্য লিখেছেন রফিকুজ্জামান। এ ছবিতে আমার ও মিম আপুর বিপরীতে কাজ করেছেন নায়ক বাপ্পি। সামনে আঁচল অভিনীত শামিম আহমেদ রনির ‘মেন্টাল’, শাহেদ চৌধুরীর ‘আড়াল’ ও হিমেল আশরাফের ‘সুলতানা বিবিয়ানা’ ছবিগুলো মুক্তি পাবে। বিশেষ করে অনেক আগে কাজ শেষ করা আঁচল অভিনীত শাহেদ চৌধুরীর ‘আড়াল’ ছবিটি শিগগিরই মুক্তি পাবে। এটি নিয়ে বেশ আশাবাদী তিনি। বলেন, এ ছবিতে আমার নায়ক হিসেবে আছেন শাহরিয়াজ। ছবিটিতে কাজ করে মনে হয়েছে এটি দর্শকরা বেশ লুফে নেবেন। তবে দর্শকরা এখন হলে গিয়ে সেভাবে কোনো ছবিই দেখছেন না বলে জানালেন আঁচল।

হলে দর্শক যাওয়া প্রসঙ্গে তিনি বলেন, এইতো আমি সেদিন ছবি দেখার বিষয়ে সিলেটের দর্শকদের কাছে জানতে চাইলাম। তারা জানালেন, ইউটিউব, ইন্টারনেট বা পেনড্রাইভে করে ঘরে বসে ছবি দেখেন তারা। এখনকার বেশিরভাগ দর্শক সিনেমা হলে গিয়ে ছবি দেখেন না। তাহলে বাংলা ছবি টিকে থাকবে কি করে? আমরা এত কষ্ট করে অভিনয় করছি কিসের জন্য? এ প্রশ্নগুলো প্রতি মুহূর্তে মনে আসছে আমার। কয়েক বছর ধরে কাজ করা চলচ্চিত্রের এ অভিনেত্রী বর্তমানে খুলনায় রয়েছেন। কাজ না থাকলেই ছুটে যান গ্রামের বাড়ি খুলনায়। আঁচল সবশেষে বলেন, আমি পরিবারের সঙ্গে সময় কাটাতে পছন্দ করি। তাই বলে সব ছেড়ে এখানে চলে আসিনি। আমি চলচ্চিত্রের মানুষ। চলচ্চিত্রে ছিলাম, আছি এবং থাকব। তবে ভালো বাজেট, ছবির কাহিনী দেখে সামনের কাজগুলো করতে চাই। এমন কোনো কাজ আর করতে চাই না যেটা দেখার পর দর্শকরা বিরক্ত হবে।

সোনালীনিউজ/ঢাকা/এমটিআই

add-sm
Sonali Tissue
শনিবার, ০৩ ডিসেম্বর, ২০১৬, ১৯ অগ্রাহায়ণ ১৪২৩