মঙ্গলবার, ১৮ ডিসেম্বর, ২০১৮, ৪ পৌষ ১৪২৫

বৃষ্টির তোড়ে ভেসে গেল শ্রীলঙ্কা, জিতে গেল ইংল্যান্ড

ক্রীড়া ডেস্ক | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ১৩ অক্টোবর ২০১৮, শনিবার ০৭:২৯ পিএম

বৃষ্টির তোড়ে ভেসে গেল শ্রীলঙ্কা, জিতে গেল ইংল্যান্ড

ছবি: সংগৃহীত

ঢাকা: বৃষ্টি আইনে সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডেতে শ্রীলঙ্কাকে ৩১ রানে হারালো ইংল্যান্ড। এই জয়ে পাঁচ ম্যাচের সিরিজে ১-০ ব্যবধানে এগিয়ে গেল ইংলিশরা। প্রথম ব্যাট করে ৯ উইকেটে ২৭৮ রান করে ইংল্যান্ড। জবাবে ২৯ ওভারে ৫ উইকেটে ১৪০ রান করতে পারে শ্রীলঙ্কা। লঙ্কান ইনিংসের ২৯ ওভারের পর বৃষ্টি নামে। পরবর্তীতে বৃষ্টির তেজ অব্যাহত থাকলে বৃষ্টি আইনে ইংল্যান্ডকে জয়ী ঘোষনা করা হয়।

প্রথম ম্যাচ বৃষ্টির কারনে পরিত্যক্ত হয়। বৃষ্টির শংকা নিয়ে দ্বিতীয় ম্যাচ খেলতে নামে শ্রীলঙ্কা ও ইংল্যান্ড। তবে বৃষ্টি দিনের শুরুতে বাগড়া বাঁধায়নি। তাই যথা সময়ে টস করতে নামেন ম্যাচের দুই অধিনায়ক। টস জিতে প্রথমে ফিল্ডিং করার সিদ্বান্ত নেন শ্রীলঙ্কার অধিনায়ক দিনেশ চান্ডিমাল।

বল হাতে নিয়ে ম্যাচের চতুর্থ বলেই সাফল্য এনে দেন শ্রীলঙ্কার অভিজ্ঞ পেসার লাসিথ মালিঙ্গা। শুন্য হাতে শ্রীলঙ্কার ওপেনার জেসন রয়কে ফেরান তিনি। এরপর ৭২ রানের জুটি গড়ে শুরুর ধাক্কা ভুলিয়ে দেন ইংল্যান্ডের জনি বেয়ারস্টো ও টেস্ট দলপতি জো রুট। ৪০ বলে ২৬ রান করে বেয়ারস্টো ফিরলে অধিনায়ক ইয়োইন মরগানের সাথে জুটি গড়েন রুট।

দ্রুত উইকেটে সেট হয়ে রানের চাকা সচল রাখেন রুট ও মরগান। এতে হাফ-সেঞ্চুরির স্বাদ নেন দু’জনই। ওয়ানডে ক্যারিয়ারের ২৯তম হাফ-সেঞ্চুরি তুলে ৭১ রানে থেমে যান রুট। মরগানের সাথে ৬৮ রানের জুটি গড়েন রুট। রুটের ৮৩ বলের ইনিংসে ৬টি চার ছিলো।

রুট ফিরে গেলেও ওয়ানডে ক্যারিয়ারের ১২তম সেঞ্চুরির পথে ছিলেন মরগান। কিন্তু দুভার্গ্য তার। সেঞ্চুরি থেকে ৮ রান দূরে থাকতে বিদায় নিতে হয় তাকে। মরগানকে বিদায় দেন মালিঙ্গা। ১১টি চার ও ২টি ছক্কায় ৯১ বলে ৯২ রান করেন মরগান।

ইংল্যান্ড অধিনায়কের বিদায়ের পর প্রতিপক্ষের উপর চাপ সৃষ্টি করে শ্রীলংকা। ফলে শেষের দিকে আর কোন ব্যাটসম্যান দলের হাল ধরতে পারেননি। শেষ পর্যন্ত ৫০ ওভারে ৯ উইকেটে ২৭৮ রানের সংগ্রহ পায় ইংল্যান্ড। শ্রীলঙ্কার পক্ষে ১০ ওভারে ৪৪ রানে ৫ উইকেট নিয়েছেন মালিঙ্গা। ওয়ানডে ক্যারিয়ারে অষ্টম মত ও ইংল্যান্ডের বিপক্ষে প্রথমবারের মত পাঁচ বা ততোধিক উইকেট নিলেন মালিঙ্গা।

জয়ের ২৭৯ রানের লক্ষ্যে খেলতে নেমে শুরুতেই বিপদে পড়ে যায় শ্রীলঙ্কা। স্কোর বোর্ডে ৩১ রান উঠতেই উপরের সারির চার ব্যাটসম্যান প্যাভিলিয়নে ফিরেন। নিরোশান ডিকবেলা ৯, উপুল থারাঙ্গা শুন্য, অধিনায়ক চান্ডিমাল ৬ ও দাসুন শানাকা ৮ রান করে ফিরেন।

উইকেট পতনের স্রোতটা পরবর্তিতে থামিয়ে দলকে খেলায় ফেরানোর চেষ্টা করেন কুশল পেরেরা ও ধনঞ্জয়া ডি সিলভা। দু’জনের ব্যাটিং নৈপুন্যে রানে চাকা ঘুড়ে শ্রীলঙ্কার। তবে পঞ্চম উইকেটে ৪৩ রানের বেশি যোগ করতে পারেননি তারা। দলীয় ৭৪ রানে থামেন পেরেরা। ৩৭ বলে ৩০ রান করেন তিনি।

এরপর দলকে সামনের দিকে টেনে নিয়ে যান ডি সিলভা ও থিসারা পেরেরা। তাতে ২৯ ওভারে ৫ উইকেটে ১৪০ রান পেয়ে যায় শ্রীলঙ্কা। এরপরই বৃষ্টির কারনে বন্ধ হয়ে খেলা। এসময় ডি সিলভা ৩৬ ও পেরেরা ৪৪ রানে অপরাজিত ছিলেন।

পরবর্তীতে এক ঘণ্টা অপেক্ষার পর বৃষ্টি আইনে ইংল্যান্ডকে জয়ী ঘোষণা করেন ম্যাচ পরিচালনাকারীরা। ম্যাচ সেরা হয়েছেন ইংল্যান্ডের মরগান।

আগামী ১৭ অক্টোবর ক্যান্ডিতে অনুষ্ঠিত হবে সিরিজের তৃতীয় ওয়ানডে।

সোনালীনিউজ/ঢাকা/জেডআই