শনিবার, ২৯ এপ্রিল, ২০১৭, ১৬ বৈশাখ ১৪২৪

রাজধানীতে বৃদ্ধার গলাকাটা লাশ উদ্ধার

নিজস্ব প্রতিবেদক  | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ০৪ জানুয়ারি ২০১৭, বুধবার ১২:০৩ পিএম

রাজধানীতে বৃদ্ধার গলাকাটা লাশ উদ্ধার

রাজধানীর উত্তরা থেকে মনোয়ারা সুলতানা নামের এক (৬৪) বৃদ্ধার গলাকাটা লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। তিনি সেনাবাহিনীর কর্ণেল খালেদ বিন ইউসুফের মা।  

শনিবার গভীর রাতে উত্তরার ৯ নম্বর সেক্টরের ১ নম্বর রোডের ৫ তলা বিশিষ্ট ১১ নম্বর বাড়ির ২য় তলা থেকে তার লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। পরে ময়নাতদন্তের জন্য রোববার সকালে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) মর্গে পাঠায়।

হাসপাতাল সূত্র ও পুলিশ জানায়, শনিবার রাতে নিহতের কোনো সাড়া না পেয়ে ওই ভবনের নিচ তলার ভাড়াটিয়া মনোয়ারার ছেলে চট্টগ্রাম ক্যান্টমেন্টে কর্মরত কর্ণেল খালেদ বিন ইউসুফকে ফোন করে জানান। পরে ইউসুফ পুলিশকে জানান। এরপর পুলিশ গিয়ে বাসার দরজা ভেঙ্গে মনোয়ারার লাশ উদ্ধার করে এবং মর্গে পাঠায়।

উত্তরা পশ্চিম থানার এসআই মো. মামুন মিয়া জানান, নিহতের গলা কাটা ছিল। এছাড়া তার নাকে ও থুতনিতে আঘাত, ঠোট কাটা, গলায় ৪ থেকে ৫ ইঞ্চি গভীর এবং ডানগালে কাটা চিহ্ন রয়েছে। বাসার ড্রইং রুমে সোফাসেটে হোলানো অবস্থায় পড়ে ছিলেন তিনি। এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ওই বাড়ির ৫ ভাড়াটিয়াকে আটক করা হয়েছে। 

হাসপাতালে নিহতের ভাই মির্জা আজম বেগ বলেন, মনোয়ারা বেগমের সঙ্গে একজন কাজের বুয়া থাকতেন। গত ৩ থেকে ৪ দিন ধরে তিনি আসছেন না। বুয়ার অনুপস্থিতিতে ওই ভবনের ৪ তলার এক ভাড়াটিয়া তাকে খাবার দিতেন। 

তিনি বলেন, মনোয়ারা বেগম দীর্ঘদিন ধরে তার স্বামীর সঙ্গে সৌদি আরবে ছিলেন। সেখানে থাকা অবস্থায় অনেক স্বর্ণালংকার কিনেছেন তিনি। মসজিদ বানানোর জন্য গত কয়েক বছর ধরে তিনি আরও স্বর্ণ জমাচ্ছিলেন। এ পর্যন্ত প্রায় ১০০ ভরি স্বর্ণ জমিয়েছেন তিনি। স্বর্ণের বিষয়টি জানতে পেরে ৪ তলার ওই ভাড়াটিয়া নিজে অথবা কারও সহায়তায় খাবারের সঙ্গে বিষ মিশিয়ে ও জবাই করে মনোয়ারাকে হত্যা করতে পারে বলে ধারণা মির্জা আজমের। হত্যার পর স্বর্ণের জন্য বাসার বিভিন্ন জায়গায় তল্লাশি চালানোর আলামত পাওয়া গেছে। কিন্তু তারা কোনো স্বর্ণ পায়নি। এগুলো ব্যাংকের ভল্টে রাখা হয়েছে।

জানা গেছে, নিহত মনোয়ারার স্বামীর নাম মৃত ডা. আবু মোহাম্মদ ইউসুফ। তিনি ওই বাড়ির ২য় তলায় একা থাকতেন। ৩ ছেলের মধ্যে বড় ছেলে ইকবাল ইবনে ইউসুফ অস্ট্রেলিয়ায় ও ছোট ছেলে আরমান ইবনে ইউসুফ আমেরিকায় থাকেন। মেজ ছেলে খালেদ বিন ইউসুফ সেনাবাহিনীতে কর্ণেল পদে কর্মরত। 

সোনালীনিউজ ডটকম/এসকে
 

Sonali Bazar

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Get it on google play Get it on apple store
Sonali Tissue
শনিবার, ২৯ এপ্রিল, ২০১৭, ১৬ বৈশাখ ১৪২৪