রবিবার, ১১ ডিসেম্বর, ২০১৬, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৩

স্ত্রীকে হত্যার পর মৃতদেহের সঙ্গে যৌনকর্ম

আন্তর্জাতিক ডেস্ক | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ১৬ জুন ২০১৬, বৃহস্পতিবার ০৪:০৫ পিএম

স্ত্রীকে হত্যার পর মৃতদেহের সঙ্গে যৌনকর্ম

ভারতের দিল্লিতে নিহার বিহার এলাকায় স্ত্রীকে হত্যার পর তার মরদেহের সঙ্গে রাতভর যৌনকর্ম করার অভিযোগ পাওয়া গেছে তার স্বামীর বিরুদ্ধে। ভারতের গণমাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমসের খবরে বলা হয়, প্রদীপ শর্মা নামের অভিযুক্ত ওই লোক পেশায় একজন অটোরিকশা চালক। বিহার এলাকায় স্ত্রী মনিকাকে নিয়ে ভাড়া বাসায় থাকত প্রদীপ।

পুলিশ শনিবার হিন্দুস্তান টাইমসকে জানায়, তাকে শুক্রবার গ্রেফতার করা হয়েছে। প্রদীপ স্ত্রী হত্যার কথা স্বীকার করেছে। ঘটনার দিন সে অতিরিক্ত পরিমানে মদ্যপ ছিল। পুলিশ আরো জানায়, ওই দম্পত্তি নিয়মিত ঝগড়া করত। মনিকাকে প্রায়ই সন্দেহ করত প্রদীপ।

ঘটনার সময় রাতে মদ্যপ অবস্থায় বাড়িতে ঢোকে প্রদীপ শর্মা। জোর করে মনিকাকে মদ খাওয়ানোর চেষ্টা করে সে। বাধা দিলে ঝগড়া শুরু হয়। এরপরই রাগের বশে স্ত্রী’র মাথা দেওয়ালের সঙ্গে ঠুকে দেয় প্রদীপ। রক্তাক্ত মনিকা ঘটনাস্থলেই মারা যান। তবে মদ্যপ স্বামীর বর্বরতা থেকে রক্ষা পায়নি মনিকার মৃতদেহ।

শরীরে লেগে থাকা রক্ত পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলার পর, সারারাত ওই অসাড় দেহের সঙ্গেই যৌন সম্পর্ক স্থাপন করে প্রদীপ শর্মা। ডিসিপি পুস্পেন্দ্রা শর্মা জানিয়েছেন, ‘সে তার স্ত্রীর মোবাইল ফোন ও অন্যান্য জিনিসপত্র সরিয়ে ফেলেন। এমনকি মনিকার বাবাকে বলেন, তার মেয়েকে সে খুন করেছে। এরপরই মোবাইল ফোন বন্ধ করে দেয়।

সোনালীনিউজ/ঢাকা/এমটিআই

add-sm
Sonali Tissue
রবিবার, ১১ ডিসেম্বর, ২০১৬, ২৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৩