রবিবার, ১৭ নভেম্বর, ২০১৯, ৩ অগ্রাহায়ণ ১৪২৬

অমিত সাহার সম্পৃক্ততা নিয়ে যা বললেন অতিরিক্ত কমিশনার মনিরুল

নিজস্ব প্রতিবেদক | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ১০ অক্টোবর ২০১৯, বৃহস্পতিবার ০৫:৫৮ পিএম

অমিত সাহার সম্পৃক্ততা নিয়ে যা বললেন অতিরিক্ত কমিশনার মনিরুল

ঢাকা: ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) অতিরিক্ত কমিশনার মনিরুল ইসলাম জানিয়েছেন, বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদ হত্যাকাণ্ডে সম্পৃক্ততা থাকায় ছাত্রলীগ নেতা অমিত সাহাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। 

বৃহস্পতিবার (১০ অক্টোবর) দুপুরে, ডিএমপির মিডিয়া সেন্টারে এক ব্রিফিংয়ে এ তথ্য জানান তিনি।

তিনি বলেন, আবরার হত্যা মামলার এজাহারে অমিতের নাম নেই। কিন্তু এই হত্যাকাণ্ডে সংশ্লিষ্টতা রয়েছে তার। অমিতের পাশাপাশি আবরারের সহপাঠী মিজানুর এবং আরাফাতেরও এই হত্যাকাণ্ডে সম্পৃক্ততার তথ্য পাওয়া গেছে। এ কারণেই তাদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

ডিএমপির অতিরিক্ত কমিশনার বলেন, আমরা প্রাথমিকভাবে জানতে পেরেছি অনেক ঘটনার কারণের মধ্যে একটি কারণ হতে পারে  সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে দেয়া স্ট্যাটাস বা শিবির সন্দেহে আবরার ফাহাদকে ডেকে নিয়ে হত্যা করা হয়েছে কিনা। এটিই একমাত্র কারণ কিনা, তা এখনই বলা যাবে না। আরও কারণ থাকতে পারে।

আবরার হত্যার ঘটনায় বুয়েট ছাত্রলীগ নেতা অমিত সাহা সহ ১৬জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। যার মধ্যে ১৩ জন এজাহারনামীয়। মামলার এজাহারে অমিত ও মিজানের নাম না থাকায় সমালোচনা শুরু হয়। বৃহস্পতিবার পুলিশ তাকে গ্রেপ্তারের কথা জানায়। বলা হয় ঘটনার সংশ্লিষ্টতার কথা। 

বুয়েট ছাত্র আবরার হত্যার পর পরই নাম আসতে থাকে শেরেবাংলা হলের ২০১১ নম্বর কক্ষের আবাসিক ছাত্র অমিত সাহার। ঘটনার সময় বাইরে থাকলেও তার কক্ষেই আবরারকে নির্যাতন করা হয়। আবরারেম রুমমেট মিজানের সঙ্গে কথা বলে আবরারের অবস্থান নিশ্চিত হন অমিত, এরকম অভিযোগ উঠে। 

সোনালীনিউজ/এমএএইচ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Get it on google play Get it on apple store
Sonali Tissue