বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই, ২০১৯, ৩ শ্রাবণ ১৪২৬

আলিম দারের বিতর্কিত সিদ্ধান্তে ক্ষোভে ফুঁসছে বাংলাদেশ

ক্রীড়া ডেস্ক | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ২৪ জুন ২০১৯, সোমবার ১১:৪৬ পিএম

আলিম দারের বিতর্কিত সিদ্ধান্তে ক্ষোভে ফুঁসছে বাংলাদেশ

ছবি সংগৃহীত

ঢাকা: বাংলাদেশের ওপেনার লিটন দাসের আউট নিয়ে বিতর্ক শুরু হয়েছে। সোমবার আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে ৪.২ ওভারে আফগান স্পিনার মুজিবের বলে কভারে ক্যাচ দেন লিটন। সেই ক্যাচ নিয়েই যত বিতর্ক। হাসমাতুল্লাহ শাহিদি ঝাপিয়ে পরে সেই ক্যাচ তুলে নেন। কিন্তু মাঠের আম্পায়ার মাইকেল গফ ও রিচার্ড কেটেলবরো সেই ক্যাচ নিয়ে দ্বিধায় পড়েন।তৃতীয় আম্পায়ার আলিম দারের সাহায্য চান তাঁরা। আলিম দীর্ঘ সময় ধরে রিপ্লে দেখার পরেও আউট দিয়ে দেন লিটনকে।

টিভিতে লিটনের ক্যাচ দেখে মনে হয়েছে,ক্যাচ লোফার আগে বল মাটি ছোঁয়।বাংলাদেশের সমর্থকরাও লিটনের আউটের সিদ্ধান্ত মেনে নিতে পারেননি। তাঁরা মনে করেন আম্পায়ারের সিদ্ধান্ত সঠিক নয়। বল মাটি ছোঁয়ার পরেই শাহিদির হাতে এসেছে।

সেমিফাইনালের টিকিট জোগাড় করার জন্য আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে ম্যাচটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ বাংলাদেশের কাছে। আফগানদের হারানোর বিকল্প নেই। আর আফগানরা আগেই টুর্নামেন্ট থেকে ছিটকে গিয়েছে। 

পাকিস্তান এবারই নয় এরআগেও বাংলাদেশের সঙ্গে চুরি করেছিল। ২০০৩ সালে মুলতান টেস্টের কথা সবার মনে থাকার কথা। অলক কাপালির ড্রফ ক্যাচকে ক্যাচ বলে দাবি করেছিলেন সেই সময়ের অধিনায়ক রশিদ লতিফ। ১৬ বছর পর আবার ক্যাচ চুরির খপ্পরে পড়ল বাংলাদেশ। মজাটা হচ্ছে, দুবারই পাকিস্তান নামটা জড়িত। আগের বার জড়িত ছিলেন পাকিস্তানি উইকেটরক্ষক রশিদ লতিফ। আর এবার জড়িত পাকিস্তানি আম্পায়ার আলিম দার।      

শর্ট কাভারে ক্যাচ লুফে নেওয়ার সময় টিভি রিপ্লেতে স্পষ্ট দেখা যায়, হাসমতউল্লাহ শহীদি বল ধরার আগে তা মাটি স্পর্শ করে। টিভি আম্পায়ার ছিলেন পাকিস্তানের আলিম দার। কয়েকবার রিপ্লে টেনে টেনে দেখলেন তিনি। যারা টিভি রিপ্লে দেখেছে, তারাও শিকার করতে বাধ্য বলটি হাতে যাওয়ার আগে মাটির ছোঁয়া লাগে। কিন্তু শেষ পর্যন্ত আউটের সিদ্ধান্তই দিলেন আলিম দার। আর তাতে আউটের শিকার হয়ে ড্রেসিংরুমে ফিরলেন বাংলাদেশের ওপেনার লিটন। 

বাংলাদেশ এবারের বিশ্বকাপে বেশ ভালো খেলছে। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ম্যাচটি বৃষ্টিতে বাতিল হয়ে যায়। নিউজিল্যান্ডের সঙ্গে বাংলাদেশ সামান্যর জন্য জয় বঞ্চিত হয়। গতকালের ম্যাচে মাঠে নামার আগে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে জয় পায় বাংলাদেশ। সে তুলনায় পাকিস্তানের অবস্থা খারাপ। আজকের ম্যাচের আগে বাংলাদেশ ও পাকিস্তানের পয়েন্ট ৫ ছিল। নেটরান রেটে বাংলাদেশ ছিল এগিয়ে। ফলে পাকিস্তানের সুবিধার কথা মাথায় রেখেই হয়তো আলিম দার এমন বিতর্কিত সিদ্ধান্ত নিলেন। বাংলাদেশকে দাবিয়ে রাখার একটা চেষ্টা করলেন পাকিস্তানি টিভি আম্পায়ার!

সোনালীনিউজ/আরআইবি/জেডআই

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Get it on google play Get it on apple store
Sonali Tissue