রবিবার, ১৮ আগস্ট, ২০১৯, ৩ ভাদ্র ১৪২৬

এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় পাসের হার ৭৩.৯৩

নিজস্ব প্রতিবেদক | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ১৭ জুলাই ২০১৯, বুধবার ০২:৩২ পিএম

এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় পাসের হার ৭৩.৯৩

ঢাকা : এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হয়েছে। দেশের আটটি  শিক্ষা বোর্ডে পাসের হার ৭৩.৯৩।জিপিএ ৫ পেয়েছে ৪৭ হাজার ২৮৬। 

এরমধ্যে কারিগরি শিক্ষা বোর্ডে পাসের হার ৮২.৬২ শতাংশ জিপিএ ৩,২৩৬ জন, মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডে পাসের হার ৮৮.৫৬ শতাংশ জিপিএ ২৫৪৩জন, ঢাকা শিক্ষা বোর্ডে পাসের হার ৭১.০১ শতাংশ জিপিএ৫ পেয়েছে ১৮,১৮৬জন, চট্টগ্রাম শিক্ষা বোর্ডে পাসের হার ৬২.১৯ শতাংশ জিপিএ৫ পেয়েছে ২,৮৬০ জন, দিনাজপুর শিক্ষা বোর্ডে ৭১.৭৮ শতাংশ, জিপিএ৫ পেয়েছে ৪,০৪৯ জন, সিলেট শিক্ষা বোর্ডে ৬৭.৫ শতাংশ জিপিএ৫ পেয়েছে ১,০৯৪ জন, রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডে পাসের হার-৭৬.৩৮ শতাংশ জিপিএ৫ পেয়েছে ৬,৭২৯ জন, যশোর শিক্ষা বোর্ডে পাসের হার-৭৫.৬৫ শতাংশ জিপিএ৫ পেয়েছে ৫,৩১২জন, বরিশাল শিক্ষা বোর্ডে পাসের হার ৭০.৬৫ শতাংশ জিপিএ৫ পেয়েছে ১,২০১জন, কুমিল্লা শিক্ষা বোর্ডে পাসের হার ৭৭.৭৪ শতাংশ জিপিএ৫ পেয়েছে ২,৩৭৫ জন।

বুধবার (১৭ জুলাই) সকাল ১০টায় গণভবনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা হাতের ফলাফল তুলে দেন শিক্ষামন্ত্রী দিপু মনি। 

শিক্ষামন্ত্রী এবছরের ফলাফলের সারসংক্ষেপ তুলে ধরেন। দুপুর সাড়ে ১২টায় শিক্ষা মন্ত্রণালয় সংবাদ সম্মেলন করে বিস্তারিত তথ্য জানাবে। তবে নিজ নিজ কেন্দ্র, প্রতিষ্ঠান এবং অনলাইনে একযোগে ফল প্রকাশ করা হবে বেলা ১টায়।

শিক্ষার্থীরা সংশ্লিষ্ট পরীক্ষা কেন্দ্র, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এবং ইন্টারনেট বা মোবাইলের মাধ্যমে ওয়েবসাইট থেকে তাদের ফল জানতে পারবে।

বরাবরের মতোই এবারও যেকোনো মোবাইল থেকে এসএমএস করে এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল জানতে পারবেন শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা।

মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, ঢাকার ওয়েবসাইট www.dhakaeducationboard.gov.bd এ রেজাল্ট কর্নারে ক্লিক করে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের EIIN এন্ট্রি করে প্রতিষ্ঠানভিত্তিক ফল ডাউনলোড করা যাবে।

এ ছাড়া www.educationboard.gov.bd থেকে ফল জানতে পারবেন।

সংশ্লিষ্ট জেলা প্রশাসক বা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার ই-মেইলে কেন্দ্র বা প্রতিষ্ঠানের রেজাল্ট শিট (সফট কপি) পাওয়া যাবে।

মোবাইলে যেভাবে মিলবে ফল

মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড, ঢাকার ওয়েবসাইট www.dhakaeducationboard.gov.bd এ রেজাল্ট কর্নারে ক্লিক করে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের EIIN এন্ট্রি করে প্রতিষ্ঠানভিত্তিক ফল ডাউনলোড করা যাবে।

www. educationboard.gov.bd থেকে ফল জানতে পারবেন। বরাবরের মতোই যে কোনো মোবাইল থেকে এসএমএস করে এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল জানতে পারবেন শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা।

এ ছাড়া সংশ্লিষ্ট জেলা প্রশাসক বা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার ই-মেইলে কেন্দ্র বা প্রতিষ্ঠানের রেজাল্ট শিট (সফট কপি) পাওয়া যাবে।

পরীক্ষার্থীদের তালিকা অনুযায়ী, এ বছর ৯ হাজার ৮১টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ১৩ লাখ ৫১ হাজার ৫০৫ পরীক্ষার্থী এ পরীক্ষায় অংশ নিয়েছে। এদের মধ্যে ৬ লাখ ৬৪ হাজার ৪৯৬ ছাত্র ও ৬ লাখ ৮৭ হাজার ৯ জন ছাত্রী।

এ বছর এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষা শুরু হয় গত ১ এপ্রিল। আটটি সাধারণ শিক্ষা বোর্ড, মাদ্রাসা ও কারিগরি বোর্ড মিলিয়ে মোট পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ১৩ লাখ ৫১ হাজার ৩০৯ জন।এর মধ্যে আটটি সাধারণ শিক্ষা বোর্ডের ১১ লাখ ৩৮ হাজার ৫৫০ জন, মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডে ৭৮ হাজার ৪৫১ এবং কারিগরি শিক্ষা বোর্ডে ১ লাখ ২৪ হাজার ২৬৫ জন। মোট কেন্দ্র সংখ্যা ২ হাজার ৫৮০টি। পরীক্ষা শেষ হয় ১২ মে। আর ১২ থেকে ২১ মের মধ্যে হয় ব্যবহারিক পরীক্ষা।

সোনালীনিউজ/এএস

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Get it on google play Get it on apple store
Sonali Tissue