রবিবার, ১৮ নভেম্বর, ২০১৮, ৪ অগ্রাহায়ণ ১৪২৫

এই দুষ্টু প্রশ্নের উত্তর দিতে পারবে কী আপনার সঙ্গী?

নিউজ ডেস্ক | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ০৫ নভেম্বর ২০১৮, সোমবার ০৫:১৭ পিএম

এই দুষ্টু প্রশ্নের উত্তর দিতে পারবে কী আপনার সঙ্গী?

ঢাকা : গবেষণায় দেখা গেছে যে সম্পর্ক যতবেশি দিনব্যাপী চলে সেই সম্পর্কের মানুষগুলোর মধ্যে নতুন ধরণের কথা হয় কম। তাই সম্পর্কে থাকা পুরনোদের পাশাপাশি নতুনভাবে যারা সম্পর্কে জড়িয়েছেন তাদের উচিত রুটিনের বাইরে গিয়ে অন্যরকম কিছু করা।

নমুনা হিসেবে মাঝে মাঝে দুষ্টু আলাপচারিতা করুন আপনার পার্টনারের সঙ্গে। এমন আলাপচারিতা আপনার সম্পর্কে যোগ করবে বাড়তি স্পাইস।

আর এরজন্য পার্টনারকে জিজ্ঞেসা করতে পারেন এই চারটি প্রশ্ন

১) ভালোবাসার সময় সবথেকে বিব্রতকর পরিস্থিতি কী ছিল?

পার্টনারের সাথে দুষ্টুমি শুরু করতে পারেন এই প্রশ্নটি দিয়ে। তাকে জিজ্ঞেস করুন যে, ভালোবাসার মুহুর্তে সবথেকে বিব্রতকর পরিস্থিতি কী ছিল তার জন্য। তবে বিষয়টিকে খুব ‘সিরিয়াস’ করবেন না। এমন বিব্রতকর অভিজ্ঞতা আপনি ছাড়াও অন্যদের সাথেও হয়ে থাকতে পারে আপনার পার্টনারের!

২) সবথেকে সেরা দুষ্টু প্রশংসা কী ছিলো?

যেকোন ধরণের প্রশংসাই আমাদের কাছে আনন্দের। আর তা যদি হয় দুষ্টু বা ফ্লার্ট করা প্রশংসা তাহলে তো কথাই নেই! সঙ্গীকে জিজ্ঞেস করুন যে, এমন সবথেকে সেরা দুষ্টু প্রশংসা কী পেয়েছিলেন তিনি। এই প্রশংসা সেক্সুয়াল অথবা নন-সেক্সুয়াল হতেই পারে। আপনার পার্টনারের অভিজ্ঞতা শোনার পাশাপাশি নিজের অভিজ্ঞতাও ভাগাভাগি করে নিতে পারেন। তবে সাবধান, বেফাঁস কিছু বলে ফেলবেন না যেন!

৩) সবথেকে সেরা সেক্সি মেসেজ কী ছিলো?

সেক্সি টেক্সট মেসেজ এখন ‘সেক্সট’ নামে ব্যাপক পরিচিতি প্রাপ্ত। আপনার সঙ্গীকে জিজ্ঞেস করুন যে, এমন সেরা কোন সেক্সটটি তিনি কারও কাছ থেকে পেয়েছেন অথবা কাউকে পাঠিয়েছেন। তবে জিজ্ঞেস করার সময় এটা বুঝে রাখুন যে, এমন ক্ষুদেবার্তা কিন্তু আপনার সাথে সম্পর্ক হওয়ার আগেই আদান প্রদান করা হয়ে থাকতে পারে। সেক্ষেত্রে বিষয়টিকে সহজভাবে নিন। অতীতে যা হয়েছে তার সাথে বর্তমানের কোন সম্পর্ক নেই।

৪) অপরিচিত মানুষকে নিয়ে কখন রোমাঞ্চিত হয়েছিলেন?

আমরা শুধু আমাদের পরিচিতদের সাথেই রোমাঞ্চিত বা উত্তেজিত হই এমনটা কিন্তু না। পথ চলতে গিয়ে অনেক অপিরিচতরাও আমাদের রোমাঞ্চিত করেন; আমরা হই উত্তেজিত। আপনার পার্টনারকে জিজ্ঞেস করুন যে, শেষবার কখন এমন এক অপরিচিত জন তার নজর কেড়েছিলো। কার জন্য এক মুহুর্তের জন্য থেমে গিয়েছিলো হৃদস্পন্দন। আর তাকে নিয়ে রাতে ঘুমানোর আগে কী দুষ্টু কল্পনায়ই না তিনি মেতেছিলেন!

সোনালীনিউজ/আরজে

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Get it on google play Get it on apple store
Sonali Tissue