বৃহস্পতিবার, ২৭ জুন, ২০১৯, ১৪ আষাঢ় ১৪২৬

এবার ভারতে ৩ মুসলিমকে গাছে বেঁধে পেটালো গোরক্ষকরা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ২৫ মে ২০১৯, শনিবার ০৭:৪২ পিএম

এবার ভারতে ৩ মুসলিমকে গাছে বেঁধে পেটালো গোরক্ষকরা

ঢাকা : ভারতের মধ্যপ্রদেশ রাজ্যের সিওনিতে গরু পাচারের অভিযোগে এক নারীসহ তিন মুসলিমকে গাছে বেঁধে পেটানো হয়েছে বলে জানিয়েছে দেশটির সংবাদ মাধ্যম। এ ঘটনায় একজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। নির্যাতনকারীদের বিরুদ্ধে দায়ের করা হয়েছে মামলা।

শনিবার (২৫ মে) ভারতীয় বার্তাসংস্থা আনন্দবাজার পত্রিকার প্রকাশিত সংবাদে জানা যায়, নির্যাতীতরা ঐ তিন মুসলিমকে শুধু গাছে বেঁধেই পেটায়নি, বাধ্য করেছে ‘জয় শ্রী রাম’ ধ্বনি দিতেও।

প্রত্যক্ষদর্শীদের বরাত দিয়ে প্রকাশিত সংবাদে বলা হয়, একটি গরু নিয়ে অটো রিকশায় চেপে সিওনি দিয়ে যাচ্ছিলেন এক নারীসহ তিন মুসলিম। কোনও ভাবে সেই খবর পৌঁছে যায় গোরক্ষকদের কানে। সঙ্গে সঙ্গে লাঠি, বাঁশ নিয়ে অটো রিকশাটিকে তাড়া করেন তারা, ধরে ফেলেন অটো রিকশার ওই তিন আরোহীকে। পরে তাদের গাড়ি থেকে নামিয়ে একটি গাছের সঙ্গে বেঁধে ফেলা হয়। এরপর এক এক করে তাদের প্রত্যেককে বেধড়ক পেটাতে শুরু করেন গোরক্ষকরা। বাদ যায়নি ওই নারীও, তাকেও পেটানো হয়েছে। এ সময় রাস্তায় দাঁড়িয়ে এই মারধোরের দৃশ্য উপভোগ করেন পথচারীরা।

এ সময় ‘জয় শ্রী রাম’ ধ্বনি দিতে শুরু করেন গোরক্ষকরা। ধৃত মুসলিমদেরও বাধ্য করানো হয় ‘জয় শ্রী রাম’ধ্বনি দিতে।

গোটা ঘটনাটির ভিডিও পরে ভাইরাল হয়ে যায় সোশ্যাল মিডিয়ায়। ওই ঘটনার তীব্র নিন্দা করে এআইএমআইএম দলের প্রধান আসাদুদ্দিন ওয়াইসি তার টুইটে লেখেন, ‘মোদির ভোটাররা এই ভাবে মুসলিমদের উপর অত্যাচার আবার শুরু করে দিল। এটাই নতুন ভারতের ছবি।’

জানা যায়, সদ্য সমাপ্ত লোকসভা নির্বাচনের ফল প্রকাশের পরে কেবল উত্তরপ্রদেশ বা মধ্যপ্রদেশ নয়, দাঙ্গা ছড়িয়ে পড়েছে পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন স্থানেও। সূত্র : আনন্দবাজার/এনডিটিভি

সোনালীনিউজ/এমটিআই

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Get it on google play Get it on apple store
Sonali Tissue