রবিবার, ২১ জুলাই, ২০১৯, ৬ শ্রাবণ ১৪২৬

খাবারের দোষ-গুণ প্রকাশে বিশ্বনবির সুমহান নীতি

 ধর্মচিন্তা ডেস্ক | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ১৭ জুন ২০১৯, সোমবার ১১:০৭ এএম

খাবারের দোষ-গুণ প্রকাশে বিশ্বনবির সুমহান নীতি

ঢাকা: খাবার খাওয়া বিশ্বনবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের সুন্নাত। রাসুলে আরবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম ইবাদতের শক্তি অর্জনে খাবার গ্রহণ করতেন। সুতরাং খাবার গ্রহণের সময় খাবার গ্রহণকে সুন্নাত মনে করলেই মুমিন বান্দা পেয়ে যাবেন সাওয়াব ও বরকত।

অনেক সময় দেখা যায়, মানুষ দাওয়াত কিংবা কোনো অনুষ্ঠানে খাবারের ভালো-মন্দ বিচার করে থাকে। অনেকে কিছু খাবারকে ভালো বলে আবার অনেক সময় ভালো হয়নি বলে অনীহা প্রকাশ করে। কিন্তু খাবারের ভালো-মন্দ প্রকাশে বিশ্বনবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের রয়েছে সুস্পষ্ট নীতি ও সুন্নাত তরিকা। হাদিসে এসেছে-

হজরত আবু হুরায়রা রাদিয়াল্লাহু আনহু বর্ণনা করেন, রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম কখনো কোনো খাবারকে খারাপ বলেননি। তাঁর নীতি ছিলো, কোনো খাবার জিনিস পছন্দ হলে তা তিনি খেয়ে নিতেন আর অপছন্দ হলে তা খাওয়া থেকে বিরত থাকতেন।’ (মুসলিম)

হজরত আবু হুরায়রা রাদিয়াল্লাহু আনহু থেকে অন্য বর্ণনায় এসেছে, তিনি বলেন, আমি রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামকে কখনো কোনো খাবার জিনিসকে খারাপ বলতে দেখিনি। তার নীতি ছিল, কোনো খাবার পছন্দ হলে তিনি খেতেন। আর তা খেতে আগ্রহ না হলে তা তিনি খেতেন না।’ (মুসলিম)

সুতরাং কোনো মুমিন মুসলমানের উচিত নয় যে, কোনো খাবারের ব্যাপারে ভালো-মন্দ দোষারোপ করা। আর তা করলে খাবারের সুন্নাতের পরিপন্থী কাজ হিসেবে বিচেচিত হয়।

আল্লাহ তাআলা মুসলিম উম্মাহকে খাবারের ব্যাপারে হাদিসে ঘোষিত খাবারের দোষ-গুণ বর্ণনায় রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের নীতি অনুযায়ী আমল করার তাওফিক দান করুন। আমিন।

সোনালীনিউজ/ঢাকা/এসআই