শুক্রবার, ০৬ ডিসেম্বর, ২০১৯, ২২ অগ্রাহায়ণ ১৪২৬

‘ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে সিটি কর্পোরেশন ও নাগরিক সম্মিলন দরকার’

নিজস্ব প্রতিবেদক | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ১৩ জুলাই ২০১৯, শনিবার ০২:৪৫ পিএম

‘ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে সিটি কর্পোরেশন ও নাগরিক সম্মিলন দরকার’

ছবি সংগৃহীত

ঢাকা : ঢাকা দক্ষিণের মেয়র মোহাম্মদ সাঈদ খোকন বলেছেন, ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন সর্বাত্মক প্রচেষ্টা চালাচ্ছে যাচ্ছে। তবে এ কার্যক্রমের সঙ্গে নাগরিক সচেতনতার সম্মিলন ঘটলেই ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণ করা সম্ভব হবে। 

শনিবার (১৩ জুলাই) সকালে খিলগাঁয়ে ডেঙ্গু আক্রান্ত এক রোগী দেখতে এসে এ কথা বলেন। এসময় মেয়র মোহাম্মদ সাঈদ খোকন বলেন, নৈতিক দায়িত্ববোধ থেকেই ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগীকে দেখতে এসেছেন তিনি।

তিনি বলেন, রাজধানীতে ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে নগর কর্তৃপক্ষ সর্বদাই নাগরিকদের পাশে আছে এবং পাশে থাকবে।

এবছর ডেঙ্গুর প্রকোপ বেশি হলেও এ বিষয়ে নগর কর্তৃপক্ষ বেশ সচেতন আছে বলে আশ্বস্ত করেন মেয়র।

তাই আতংকিত না হয়ে এ বিষয়ে নাগরিকদেরও সচেতন হতে বলেন তিনি। এসময় তিনি মশক নিয়ন্ত্রণে ডিএসসিসির গৃহীত এবং চলমান বিভিন্ন কার্যক্রম সাংবাদিকদের কাছে তুলে ধরেন।

তিনি বলেন, ১ লা জুলাই থেকে ক্রাশ প্রোগ্রাম উদ্বোধনের মাধ্যমে মশক নিয়ন্ত্রণের কার্যক্রম শুরু হয়েছে। এর পাশাপাশি নাগরিক উদ্বুদ্বকরন ও সচেতন মূলক সভা, সমাবেশের আয়োজন, লিফলেট বিতরণ, মাইকিংকরন, পত্রিকায় বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ, অতিরিক্ত জনবল নিয়োজিত করে মশক নিয়ন্ত্রণ কার্যক্রম জোরদার করা হয়েছে।

একইসঙ্গে কল সেন্টারের মাধ্যমে বিনামূল্যে নগরবাসীকে ওষুধসহ চিকিৎসাসেবা প্রদানের ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে।
মেয়র সাঈদ ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগীর সঙ্গে কথা বলেন এবং তার শারীরিক অবস্থার খোঁজখবর নেন।

স্ত্রী ডেঙ্গু আক্রান্ত হওয়ায় ক্ষতিপূরণ চেয়ে মেয়রের বিরুদ্ধে মামলাকারী আইনজীবী তার বাসায় এসে রোগীর খোঁজ খবর নেয়ার জন্য মেয়র সাঈদ খোকনকে ধন্যবাদ জানান।

এসময় মেয়রের সঙ্গে স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর ওয়াহিদুল হাসান মিল্টন, প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা, প্রধান বর্জ্য ব্যবস্থাপনা কর্মকর্তা কমোডোর জাহিদ হাসানসহ অন্যান্য সিনিয়র নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

সোনালীনিউজ/এএস
 

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Get it on google play Get it on apple store
Sonali Tissue