শনিবার, ১১ এপ্রিল, ২০২০, ২৭ চৈত্র ১৪২৬

ঢাকার মানুষ এতো সেক্স ফ্রিক হলো কিভাবে? প্রশ্ন প্রিয়তির

নিউজ ডেস্ক | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ১১ ফেব্রুয়ারি ২০২০, মঙ্গলবার ০২:৩৪ পিএম

ঢাকার মানুষ এতো সেক্স ফ্রিক হলো কিভাবে? প্রশ্ন প্রিয়তির

ঢাকা: ‘আচ্ছা ঢাকায় বসবাসরত মানুষদের সমস্যা কি? এতো সেক্স ফ্রিক হয়ে গেলো কিভাবে? আই মিন সেক্স ছাড়া যেনো কিছুই বোঝে না।‘ ফেসবুক স্ট্যাটাসে এমনই কিছু প্রশ্ন ছুঁড়ে দিয়েছেন মিজ আয়ারল্যান্ডখ্যাত বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত মডেল ও অভিনেত্রী মাকসুদা আক্তার প্রিয়তি।

প্রিয়তির স্ট্যাটাসটি সোনালীনিউজের পাঠকদের জন্য হুবহু তুলে ধরা হলো-

‘একজন মানুষ আরেকজন মানুষের মধ্যে কি কোন ধরনের শারীরিক সম্পর্ক ছাড়া বা এডাল্ট কথোপকথন ছাড়া আর কোন বিষয়ে কি আলাপ/ আলোচনা/ চর্চা হতে পারে না? ঘুরে ফিরে ঐ স্তন আর যোনী/যৌনাঙ্গ পর্যন্ত দৌড়!! আই মিন, হাউ ডিসগাস্টিং এন্ড ডিসগ্রেসফুল!! এদের মস্তিষ্কতে কি যৌন বিষয় ছাড়া আর কোন কিছু উৎপাদন করে না চর্চা করার জন্য?

আই মিন সিরিয়াসলি !! সেক্স করা ছাড়া আরেকজন মানুষের সাথে কি আর কোন সম্পর্ক তৈরি হতে পারে না কিংবা বুদ্ধিমত্তার আদান প্রদান হতে পারে না?

আমি ইউরোপেও মানুষদের এমন সেক্স ফ্রিক হতে দেখি না। এখানে যেকোনো মানুষের সাথে সেক্স বিষয়ক ছাড়া অন্য যেকোনো বিষয়ে ঘণ্টার পর ঘণ্টা গল্প করা যায় এক কাপ চা/ কফি পান করতে করতে কিংবা এক গ্লাস বিয়ার/ ওয়াইন । হোক সেই মানুষটি পরিচিত/ স্বল্প-পরিচিত কিংবা অপরিচিত।

আর আরেকটা বিষয়, গ্রাম বা মফস্বলের মেয়েরা যে উচ্চ শিক্ষার জন্য ঢাকার দিকে ধাবিত হয়, আমি তাদের উচ্চাকাঙ্ক্ষাকে, তাদের চালনাশক্তিকে সাদুবাধ জানাই। কিন্তু এদের মধ্যে অধিকাংশ মেয়েরা ঢাকায় এসে করছে টা কি? কোন খবর আছে সেই পরিবারের? না, নেই। জানেও না হয়তো, বা কোন পরিবার জানলেও না জানার ভান করে আছে কি না তাও জানা নেই। মানে গোয়ালের গরুর দড়িটা খুলে দিলে যা হয় আর কি।

সরি ফর মাই ল্যাঙ্গুয়েজ। হিজাব এর নীচে সবই চলতে থাকে। চাইলে আপনারা কাকের মতো চোখ বন্ধ করে ভাবতে পারেন, 'আমাকে কেউ দেখছে না'। কিন্তু আপনাদের সমাজে কি চলছে, কোন দিকে অবক্ষয় হচ্ছে তা আমার চেয়ে আপনাদের কাছে চিত্র খুবই পরিষ্কার। আফসোস, একদল কলুষিত মানুষদের জন্য সবার নাম খারাপ হয়।‘

সোনালীনিউজ/ঢাকা/এসএস

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Get it on google play Get it on apple store
Sonali Tissue