সোমবার, ২৫ মে, ২০২০, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

প্রাথমিকের শিক্ষার্থীর হাত-পা বাঁধা লাশ মিলল জঙ্গলের গর্তে

নেত্রকোনা প্রতিনিধি | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ০১ মে ২০২০, শুক্রবার ০৪:৩৯ পিএম

প্রাথমিকের শিক্ষার্থীর হাত-পা বাঁধা লাশ মিলল জঙ্গলের গর্তে

নেত্রকোনা : নেত্রকোনার বারহাট্টা উপজেলার একটি জঙ্গলের গর্ত থেকে হাত-পা বাঁধা অবস্থায় মণি আক্তার (১২) নামে এক স্কুলছাত্রীর লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।

শুক্রবার (১ এপ্রিল) দুপুরে পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নেত্রকোনা আধুনিক সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠায়।

নিহত মণি আক্তার বারহাট্টা উপজেলার রায়পুর ইউনিয়নের লামাপাড়া গ্রামের আব্দুল মন্নাফের মেয়ে। সে একই গ্রামের পাইকপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রী।

মণির পরিবার ও পুলিশ জানায়, সম্প্রতি করোনা পরিস্থিতির কারণে স্কুল বন্ধ থাকায় মণি ও তার কয়েকজন সহপাঠী মিলে পাশের নয়পাড়া গ্রামের তালেব আলীর কাছে প্রাইভেট পড়ত। বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০টায় প্রাইভেট পড়ার উদ্দেশ্যে মণি বাড়ি থেকে বের হয়।

প্রাইভেট পড়া শেষে প্রায় সাড়ে ১২টায় সে শিক্ষকের বাড়ি থেকে বের হয়। এরপর সে আর বাড়িতে আর ফিরে আসেনি। তাদের বাড়ি থেকে ওই গৃহ শিক্ষকের বাড়ি প্রায় ১০ থেকে ১৫ মিনিটের হাঁটার পথ। মণি বাড়িতে আসতে দেরি হওয়ায় দুপুরে পরিবারের লোকজন খোঁজাখুঁজি করে ব্যর্থ হয়ে রাতে স্থানীয় ফকিরের বাজারে অবস্থিত পুলিশ ফাঁড়িতে খবর দেয়।

পরে আজ শুক্রবার সকাল পৌনে ১১টায় স্থানীয়রা একই গ্রামের মান্দারতলা এলাকায় একটি বাড়ির পেছনে জঙ্গলের গর্তে মণির হাত-পা লাশ দেখতে পায়।

এ ব্যাপারে পুলিশ সুপার মো. আকবর আলী মুন্সী বলেন, ধারণা করা হচ্ছে হাত-পা বেঁধে ওই ছাত্রীকে শ্বাসরোধে হত্যা করা হয়েছে। দেখে মনে হচ্ছে তাকে ধর্ষণও করা হতে পারে। ময়নাতদন্তের পর তা স্পষ্ট হওয়া যাবে।

সোনালীনিউজ/এএস

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Get it on google play Get it on apple store
Sonali Tissue