রবিবার, ০৫ এপ্রিল, ২০২০, ২২ চৈত্র ১৪২৬

প্রাথমিকে আরেকটি সুখবর!

নিজস্ব প্রতিবেদক | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ০৮ মার্চ ২০২০, রবিবার ০২:০৭ পিএম

প্রাথমিকে আরেকটি সুখবর!

ঢাকা: দেশের ৩২ জেলায় সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষক নিয়োগ কার্যক্রম সম্পন্ন হয়েছে। আইনি জটিলতা নিরসন হওয়ায় এসব জেলায় যোগদান ও পদায়ন কার্যক্রম শেষ হয়েছে। হাইকোর্টের নিষেধাজ্ঞা স্থগিত হওয়ায় বর্তমানে আরও ১৩ জেলায় নিয়োগ কার্যক্রম চলছে। অপরদিকে এখানো ১৫ জেলায় নিয়োগ কার্যক্রমে আদালতের স্থগিতাদেশ বহাল রয়েছে বলে জানিয়েছে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতর (ডিপিই)।

এ বিষয়ে ডিপিইর মহাপরিচালক মো. ফসিউল্লাহ রোববার (৮ মার্চ) বলেন, কিছু জেলায় নিয়োগের সব প্রক্রিয়া শেষ হয়েছে, আবার কিছু জেলায় যোগদান, পদায়ন শেষে নতুন শিক্ষকদের প্রশিক্ষণ দেয়া হচ্ছে। সম্প্রতি নাটোর, সিরাজগঞ্জ, মাদারীপুর, শরীয়তপুর, গোপালগঞ্জ, চাঁদপুর, পটুয়াখালী, সুনামগঞ্জ, সিলেট, লালমনিরহাটসহ ১৩ জেলার নিয়োগ কার্যক্রমে স্থগিতাদেশ বাতিল করা হয়েছে। চলতি সপ্তাহে এসব জেলায় নিয়োগ কার্যক্রম শেষ করা হবে। এছাড়াও ঢাকাসহ ১৫ জেলার নিয়োগের স্থগিতাদেশ বাতিলের জন্য উচ্চ আদালতে আপিল করা হয়েছে। আশাকরি আগামী ২০ মার্চের মধ্যে দেশের ৬১ জেলার চূড়ান্তভাবে পাস করা প্রার্থীদের প্রাথমিক বিদ্যালয়ে যোগদান-পদায়ন সম্ভব হবে।

প্রসঙ্গত, ২০১৮ সালের ৩০ জুলাই সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষক নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ হয়। পরে ওই বছরের ১-৩০ আগস্ট পর্যন্ত সারাদেশ থেকে ২৪ লাখ পাঁচজন প্রার্থী আবেদন করেন। গত বছর সারাদেশে প্রথম ধাপে ২৪ মে, দ্বিতীয় ধাপে ৩১ মে, তৃতীয় ধাপে ২১ জুন এবং চতুর্থ ধাপে ২৮ জুন লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়।

সেপ্টেম্বরে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষক নিয়োগ লিখিত পরীক্ষায় ৫৫ হাজার ২৯৫ জন পাস করেন। গত ৬ অক্টোবর থেকে নিয়োগের মৌখিক পরীক্ষা শুরু হয়। মাসব্যাপী সারাদেশের সব জেলায় মৌখিক পরীক্ষা আয়োজন করা হয়। সবশেষে গত ২৪ ডিসেম্বর এ পরীক্ষায় ৬১ জেলায় ১৮ হাজার ১৪৭ জনকে চূড়ান্তভাবে নির্বাচিত করে ফলাফল প্রকাশ করে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়।

সোনালীনিউজ/টিআই

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Get it on google play Get it on apple store
Sonali Tissue