বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই, ২০১৯, ৩ শ্রাবণ ১৪২৬

বলিউড তারকারা অন্য ব্যবসায় ঝুঁকছেন

বিনোদন ডেস্ক  | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ১১ জুলাই ২০১৯, বৃহস্পতিবার ০১:২২ পিএম

বলিউড তারকারা অন্য ব্যবসায় ঝুঁকছেন

ঢাকা : আপনি যে পেশাতেই থাকুন না কেন, ‘পাশাপাশি আর কী করেন? এই প্রশ্নটা শুধু বাংলাদেশের মানুষেরাই করে তা নয় কিন্তু। পৃথিবীর সকল দেশের সকল মানুষই এমন প্রশ্নে অভ্যস্ত। বাদ যান না তারকারাও। আর হলিউড, বলিউড বা বাংলাদেশি তারকারাও সিনেমা বা শোবিজে কাজ করার পাশাপাশি অনেকেই ভিন্ন ব্যবসাও করেন। তবে বলিউড তারকারা অন্য ব্যবসার দিকে বেশি ঝুঁকছেন। 

সিনেমার জীবন অনিশ্চিত জেনেই কি অন্য ব্যবসায় ঝুঁকছেন বলিউড তারকারা। হয়তো বা। কারণ আজ আপনার খ্যাতি থাকলেও কাল যে আপনি এই খ্যাতি বেঁচে চলতে পারবেন তার কোনো নিশ্চয়তা নেই। ফলে বলিউড তারকাদের অন্য ব্যবসায় ঝুঁকে পড়ার বিষয়টি স্বাভাবিকই বলা যায়। 

তো চলুন জানা যাক কোন তারকা কোন ব্যবসায় বিনিয়োগ করছেন।

বলিউড তারকাদের বেশির ভাগই ঝুঁকছেন স্টার্টআপ কোম্পানির দিকে। কেউ প্রসাধনী সামগ্রী বিক্রি করছেন তো আবার কেউ ‘দই’য়ের ব্যবসা করছেন। কেউ বা আবার তৈরি করছেন ডেটিং সাইট। আবার কেউ কেউ অর্থ ঢালছেন যোগাসনে। কেউ আবার নিজের নামে সুগন্ধীও বাজার জাত করছেন। 

কারিনা কাপুর-আনুষ্কা শর্মা-সোনম কাপুর-কৃতি স্যানন বা সানি লিওনের রয়েছে প্রসাধনী ব্যবসা। তাদের সঙ্গে তাল মিলিয়ে অন্যরাও আসছেন ব্যবসায়, তবে এখনকার অনেকেই আর প্রসাধনী বা ফ্যাশন ব্যবসায় নামছেন না। বেশির ভাগেরই লক্ষ্য স্টার্টআপের দিকে।

দীপিকা পাড়ুকোন বিনিয়োগ করেছেন দইয়ের ব্র্যান্ড ইপিগামিয়া’তে। এর মাধ্যমে তিনি নাম লেখান অমিতাভ বচ্চন, আমির খান, শিল্পা শেঠির মতো তারকাদের তালিকায়। এপিগামিয়া-র এক কর্তার কথায়, “দেশের যুব সম্প্রদায়ের স্বাস্থ্যের দিকটা ভেবেই দীপিকা এগিয়ে এসেছেন। আমাদেরও অর্থের প্রয়োজন ছিল। এতে দু’জনের দরকারটাই মিটল।”

অর্জুন কাপুর বিনিয়োগ করছেন ফুডক্লাউড ডট ইন-এ। ‘ফুডক্লাউড’ আসলে একটি খাদ্য প্রস্তুতকারক সংস্থা। যেখানে মেয়েরা অর্ডার মাফিক ঘরের খাবার তৈরি করে বাড়ি বাড়ি পৌঁছে দিচ্ছেন। 

অন্যদিকে, সুনীল শেট্টিও সাহায্য করছেন একটি ফিটনেস কমিউনিটিকে। কয়েক বছর আগে যেমনটা করেছিলেন শিল্পা শেঠি। তবে শিল্পা আপাতত মেতেছেন নিজের ফিটনেস অ্যাপ নিয়ে। আই স্টোর থেকে যা আপনিও ডাউনলোড করতে পারবেন চাইলেই। তা ছাড়া গোয়ায় হোটেল ব্যবসাও রয়েছে শিল্পার।

স্টার্টআপে সাহায্য করার ইতিহাসটা কিন্তু বলিউড তারকাদের জন্য বেশ পুরোনো। যদিও, এত দিন সেভাবে শিরোনামে আসেনি কখনো। কারণ, তারকারা পোশাক বা প্রসাধনীর ব্র্যান্ড নিয়ে যতটা উৎসাহী হতেন ততটা আগ্রহ এই ধরনের ইনভেস্টমেন্টের ক্ষেত্রে দেখাতেন না। আর সমস্যাটা সেখানেই। কেউ কোনো স্টার্টআপে বিনিয়োগ করলেও সেভাবে জানাতে চাইতেন না। তবে ধীরে ধীরে ট্রেন্ড বদলাচ্ছেন বলিউড তারকারা। 

গত বছর প্রিয়াঙ্কা চোপড়া মহিলাদের সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং সাইট ‘বিম্বল’-এ অর্থ দেওয়ার পর শিরোনামে উঠে আসে বলি-সেলেবদের স্টার্টআপে টাকা ঢালার খবর। মালাইকা আরোরা, কারিশমা কাপুর, হৃতিক রোশন, জ্যাকলিন ফার্নান্দেজ। 

বলিউডের তালিকাটা বেশ দীর্ঘ। মাস ছয়েক আগে মালাইকা যেমন সাহায্য করেছেন মুম্বাইয়ের একটি জিমখানায়। নাম ‘দ্য ডিভা যোগা’। যেখানে ‘যোগা’ এবং ‘জুম্বা’ শেখানো হয়। এক্সারসাইজের দুনিয়ায় ‘জুম্বা’ এখন সবার পছন্দের। গানের তালে তালে এক্সারসাইজ, জুম্বার ইউএসপি। কারিশমা কাপুর আবার সাহায্য করেছেন শিশুদের জন্য তৈরি একটি সংস্থাকে। যেখানে মায়েদের সঙ্গে সঙ্গে শিশুদের দরকার-অদরকার সবটা দেখা হয়।

সোনালীনউজ/এএস