মঙ্গলবার, ২৩ এপ্রিল, ২০১৯, ১০ বৈশাখ ১৪২৬

ভারতের লোকসভা নির্বাচন

বাংলাদেশি নায়ক ফেরদৌসের অংশগ্রহণে সমালোচনার ঝড় 

বিনোদন প্রতিবেদক | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ১৫ এপ্রিল ২০১৯, সোমবার ০৫:২৭ পিএম

বাংলাদেশি নায়ক ফেরদৌসের অংশগ্রহণে সমালোচনার ঝড় 

ফেরদৌস

ঢাকা: ভারতের লোকসভা নির্বাচনে বাংলাদেশি জনপ্রিয় নায়ক ফেরদৌসের অংশগ্রহণে বইছে সমালোচনার ঝড়। ভারতের লোকসভা নির্বাচন নিয়ে চলছে প্রচারণার জোয়ার। ইতিমধ্যে দেশটির সাত দফা নির্বাচনের প্রথম দফা শেষ হয়েছে। ১৮ এপ্রিল দ্বিতীয় দফার নির্বাচন শুরু হতে যাচ্ছে। সেই নির্বাচনের প্রচারনায় অংশ নিতে পশ্চিমবঙ্গে পৌঁছান ফেরদৌস। সেখানে তিনি তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থীর হয়ে নির্বাচনী প্রচারণায় অংশ নেন।

রোববার (১৪ এপ্রিল) তিনি ভারতে চলমান লোকসভার নির্বাচনী প্রচারণায় নামেন। রাজ্যটির উত্তর দিনাজপুর জেলার রায়গঞ্জ লোকসভা কেন্দ্রের তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থী কানাইয়ালাল আগরওয়ালের সমর্থনে প্রচারণা চালিয়েছেন তিনি।

প্রার্থী কানাইয়ালাল হুডখোলা গাড়িতে ফেরদৌসকে নিয়ে রোড শো করেছেন রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে। তার সঙ্গে ছিলেনওপার বাংলার অভিনেতা অঙ্কুশ হাজরা ও পায়েল সরকার।

এরমধ্যে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, ‘সোমবার রাজ্যটির করণদিহি এবং ইসলামপুরের দুটি নির্বাচনী প্রচারণায় অংশ নিতে দেখা যেতে পারে ফেরদৌসকে।’

এদিকে ভারতের নির্বাচনী প্রচারণায় বাংলাদেশি নায়কের অংশগ্রহণে সমালোচনার ঝড় বইছে। ক্ষোভ প্রকাশ করে স্থানীয় বিজেপি নেতারাও। পশ্চিমবঙ্গের বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ বক্তব্যও দিয়েছেন ফেরদৌসকে নিয়ে।

সেই বক্তব্যে তিনি বলেছেন, ‘ভারতের একটি নিবন্ধিত রাজনৈতিক দলে বিদেশি নাগরিকের প্রচারণা দৃষ্টিকটু। আমরা এ ঘটনার নিন্দা জানাই। দিনাজপুর জেলার ৫০ শতাংশ মুসলিম ভোটারকে আকৃষ্ট করতেই তৃণমূল কংগ্রেস এরকম কাণ্ডজ্ঞানহীন প্রচারণা চালাচ্ছে।’

দিলীপ ঘোষের এমন তীর্যক মন্তব্যের পর কানাইয়ালালের নির্বাচনী এজেন্ট মুসারফ হুসেন বলেন, ‘ফেরদৌস বাংলাদেশে একজন জনপ্রিয় অভিনেতা। তিনি কলকাতার সিনেমারও বড় তারকা। তার গ্রহণযোগ্যতা আছে এবং তিনি কলকাতায় অনেক স্বীকৃতি পুরস্কারও পেয়েছেন। সেজন্যই আমরা তাকে তৃণমূল কংগ্রেসের প্রার্থীর হয়ে রোড শো-এ উপস্থিত থাকার জন্য অনুরোধ জানিয়েছিলাম। তিনিও রাজি হওয়ায় তাকে আমরা রোড শো-তে নিয়েছি।’

দুই বাংলার জনপ্রিয় চিত্রনায়ক ফেরদৌস। বাংলাদেশের পাশাপাশি কলকাতাতেও কাজ করছেন দীর্ঘদিন ধরে। নব্বই দশকের শেষের দিকে নিজের প্রথম ছবি ‘হঠাৎ বৃষ্টি’ দিয়ে দুই বাংলায় একসঙ্গে যাত্রা করেন তিনি। এরপর নিজ দেশের পাশাপাশি কলকাতায় অনেক ব্যবসাসফল সিনেমাও উপহার দিয়েছেন তিনি।


সোনালীনিউজ/বিএইচ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Get it on google play Get it on apple store
Sonali Tissue