বুধবার, ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১৩ ফাল্গুন ১৪২৬

বাংলাদেশের সফরের আগে লাহোরে ৩ অস্ত্রধারী আটক, শঙ্কিত বিসিবি

ক্রীড়া ডেস্ক | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ২১ জানুয়ারি ২০২০, মঙ্গলবার ০৩:২১ পিএম

বাংলাদেশের সফরের আগে লাহোরে ৩ অস্ত্রধারী আটক, শঙ্কিত বিসিবি

ঢাকা: বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের পাকিস্তান সফরে যাওয়ার আগের দিন লাহোরের অদূরে হারুনাবাদ বাইপাস থেকে অস্ত্রধারী ৩ সন্ত্রাসীকে আটক করেছে কাউন্টার টেররিজম ডিপার্টমেন্ট (সিটিডি)। তিন ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলতে যাওয়া কথা বাংলাদেশে।  আর লাহোরে তিন ম্যাচ টি-টোয়েন্টি সিরিজের সব খেলা অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

এ বিষয়ে সিটিডির এক মুখপাত্র জানিয়েছেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে তিনজনকে আটক করা হয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে ৭টি বিস্ফোরক, সেফটি ফিউজ, ২ বাক্স বল বেয়ারিং, একটি ইলেকট্রিক ব্যাটারি, একটি ইলেকট্রিক সুইচ এবং দুটি শপিং ব্যাগভর্তি বোমা তৈরির সরঞ্জামাদি উদ্ধার করেছে পুলিশ।

এদিকে, বাংলাদেশের বিপক্ষে সিরিজকে সামনে রেখেই স্থানীয় পুলিশ প্রশাসন নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে। টি-টোয়েন্টি সিরিজে মোতায়েন থাকবে ১০ হাজার পুলিশ, ১৭ এসপি, ৪৮ ডিএসপি, ১৩৪ ইনসপেক্টর এবং ৫৯২ জন অধস্তন নিরাপত্তাকর্মী। টাইগারদের জন্য ৩ স্তরবিশিষ্ট নিরাপত্তাব্যবস্থা রাখা হবে।  

স্টেডিয়ামে ঢোকার সময়ও কয়েক ধাপের নিরাপত্তাবেষ্টনী পার হতে হবে দর্শকদের। নিষিদ্ধ কোনো বস্তু নিয়ে কেউ স্টেডিয়ামে প্রবেশ করতে পারবেন না। যুদ্ধাবস্থার মতো সমৃদ্ধ নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেয়ার পরেও অস্ত্রধারী ৩ সন্ত্রাসী আটকের ঘটনা দুশ্চিন্তার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে।  উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম ছাড়া সেরা সব ক্রিকেটারই দলের সঙ্গে পাকিস্তানে যাচ্ছেন। 

তবে দেশটিতে যেতে আপত্তি জানিয়েছেন টাইগার দলের কোচিং স্টাফের বেশিরভাগ সদস্যই। সাত বিদেশি কোচিং স্টাফের পাঁচজনই না যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। দলের দক্ষিণ আফ্রিকান ব্যাটিং কোচ নিল ম্যাকেঞ্জি এরই মধ্যে সেখানে যেতে অপরাগতা প্রকাশ করেছেন। তার পাশাপাশি সফরে যেতে চাইছেন না টাইগারদের ফিল্ডিং কোচ রায়ান কুক।

পাঁচদিনের সংক্ষিপ্ত এই সফরে দলের সঙ্গে আরও যাচ্ছেন না স্পিন বোলিং কোচ ড্যানিয়েল ভেট্টোরি। গত বছরের শেষদিকে বিসিবির সঙ্গে চুক্তি হয় নিউজিল্যান্ড এই কিংবদন্তির। ভারতীয় নাগরিক হওয়ায় দেশটিতে যাচ্ছেন না দলের কম্পিউটার অ্যানালিস্ট শ্রীনিবাসন চন্দ্রসেকারান। তবে স্কাইপের মাধ্যমে দলকে সহায়তা করবেন তিনি।  নিরাপত্তাজনিত কারণে বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের পাকিস্তান সফর নিয়ে জল কম ঘোলা হয়নি। 

বিষয়টি নিয়ে আইসিসিকে শেষ পর্যন্ত মধ্যস্ততা কোর্টে হয়। যার ফলে হয় এবং ৩ দফায় এই সিরিজের সূচি নির্ধারণ হয়। ২৪ তারিখ লাহোরের গাদ্দাফি স্টেডিয়ামে প্রথম টি-টোয়েন্টিতে মুখোমুখি হচ্ছে বাংলাদেশ-পাকিস্তান। আর ২৫ ও ২৭ জানুয়ারি একই মাঠে বাকি দুই ম্যাচে লড়বে এই দুই দল। এরপর ৭-১১ ফেব্রুয়ারি দ্বিতীয় দফায় রাওয়ালপিন্ডিতে প্রথম টেস্ট খেলে দেশে ফিরবে বাংলাদেশ দল। শেষ দফায় ৩ এপ্রিল করাচিতে একমাত্র ওয়ানডের পর ৫ এপ্রিল থেকে সেখানেই হবে দ্বিতীয় টেস্ট।

সোনালীনিউজ/এমএএইচ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Get it on google play Get it on apple store
Sonali Tissue