মঙ্গলবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৯, ২৬ অগ্রাহায়ণ ১৪২৬

বাড়ি পৌঁছনোর কথা বলে চিকিত্‍‌সককে ট্রাকে তুলে ধর্ষণের পর পুড়িয়ে হত্যা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ২৯ নভেম্বর ২০১৯, শুক্রবার ১১:১২ পিএম

বাড়ি পৌঁছনোর কথা বলে চিকিত্‍‌সককে ট্রাকে তুলে ধর্ষণের পর পুড়িয়ে হত্যা

ঢাকা : পুড়ে যাওয়া ২২ বছরের তরুণ নারী চিকিৎসক প্রিয়াঙ্কা রেড্ডির মরদেহ উদ্ধার হল ভারতের হায়দরাবাদের সদনগরে। ওই তরুণীকে ধর্ষণ করে প্রথমে খুন করা হয়। তারপর দেহ জ্বালিয়ে দেয় ২ ব্যক্তি। ওই তরুণী তাঁর স্কুটারের টায়ার পাংচার হওয়ায় বাড়ি পৌঁছে দেওয়ার জন্য সাহায্য চেয়েছিলেন দুই ট্রাক ড্রাইভারের কাছে। প্রথমে ধর্ষণ করে তারা। খুন করে হায়দরাবাদের ফাঁকা জায়গায় চাতানপল্লি ব্রিজের কাছে দেহ জ্বালিয়ে দেয়। যুবতী পেশায় ছিলেন পশুচিকিত্‍সক।

পুলিশ জানিয়েছে, তরুণীকে তন্ডুপল্লি টোলপ্লাজার কাছে রেপ করে খুন করা হয়।  তারপর ট্রাকে দেহ নিয়ে গিয়ে সদনগরে জ্বালিয়ে দেয় ট্রাক ড্রাইভার ও সহযোগী।  দেহের পাশে আধ পোড়া কয়েক টুকরো পোশাক উদ্ধার হয়েছে।  অর্থাত্‍ জ্বালিয়ে দেওয়ার আগে নগ্ন করা হয়েছিল তরুণীর দেহ।  সাইবারাবাদ পুলিশ টোল প্লাজার সিসিটিভি ফুটেজ খতিয়ে দেখছে।

ঘটনায় সাইবারাবাদ পুলিশ দুজন ট্রাক ড্রাইভারকে গ্রেফতার করেছে।  আটকদের জেরা করে তরুণীর পোশাক, জুতো, একটি পানীয়ের বোতল উদ্ধার হয়েছে টোল প্লাজা এলাকায়।  টায়ার রিপেয়ার শপের মালিক জানিয়েছেন, বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ৯টা থেকে ১০টার মধ্যে এক যুবতী স্কুটি নিয়ে তাঁর কাছে এসেছিলেন টায়ার সারানোর জন্য।

তিনি তাঁর বোনকে রাত পৌনে ১০টা নাগাদ ফোন করেছিলেন, টায়ার পাংচার হয়ে গিয়েছে জানাতে৷ এক ট্রাক ড্রাইভার তাঁকে বাড়ি পৌঁছে দেওয়ার প্রস্তাব দিয়েছে।  কিন্তু ট্রাক ড্রাইভারদের আচরণ তাঁর সুবিধের লাগছে না।  তাঁর বোন পরামর্শ দেন, ট্রাক ছেড়ে একটি ক্যাব বুক করে বাড়ি ফেরার।  এরপর থেকেই তাঁর ফোন বন্ধ হয়ে যায়।

এরপর রাত ১১টা নাগাদ তরুণীর নামে মিসিং ডায়েরি করেন পরিবারের লোকেরা।  বৃহস্পতিবার ভোরে পোড়া দেহটি মেলে সদনগরে।

সোনালীনিউজ/এএস

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Get it on google play Get it on apple store
Sonali Tissue