শনিবার, ১৬ নভেম্বর, ২০১৯, ১ অগ্রাহায়ণ ১৪২৬

বিপিএলে থাকবে না কুমিল্লা!

ক্রীড়া ডেস্ক | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ২১ আগস্ট ২০১৯, বুধবার ০৯:৩২ পিএম

বিপিএলে থাকবে না কুমিল্লা!

ঢাকা: আগামী বছর বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল) দুই বারের চ্যাম্পিয়ন কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সকে দেখা নাও যেতে পারে। বুধবার (২১ আগস্ট) বিপিএলের গভর্নিং কাউন্সিলের সঙ্গে বৈঠক শেষে এমনটিই ইঙ্গিত দিয়েছেন কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের কর্ণধার নাফিসা কামাল।

এদিকে, অধিকাংশ ফ্র্যাঞ্চাইজিরা ঘুরে ফিরে আইকন বা এ প্লাস ক্যাটাগরির ক্রিকেটারের কথাই বলেছেন বেশি।  তারা অন্তত একজন করে আইকন বা এ প্লাস ক্যাটাগরির ক্রিকেটার আগে থেকে অন্তর্ভুক্তির সুযোগ করে দেয়ার দাবি তোলেন। পাশাপাশি অন্তত দুজন বিদেশি ক্রিকেটার আগে থেকে দলে রাখার নিশ্চয়তাও চেয়েছেন। এর বাইরে বিপিএলের লভ্যাংশ বণ্টনের কথাও উঠেছে বেশ জোরেসোরে।

আলোচনা-বৈঠক যাই বলা হোক না কেন, বিপিএলের গভর্নিং কাউন্সিলের সাথে ফ্র্যাঞ্চাইজিদের আনুষ্ঠানিক কথোপকথন যতটা উত্তাপ ছড়াবে বলে ভাবা হচ্ছিল, তা ছড়ায়নি। খুলনা টাইটান্স, রংপুর রাইডার্স আর রাজশাহী কিংসের ফ্র্যাঞ্চইজিরা বরং অন্তত একজন করে আইকন বা এ প্লাস ক্যাটাগরির ক্রিকেটারের পাশাপাশি দুজন বিদেশি ক্রিকেটারকে আগেভাগে দলে ভেড়ানোর বিষয়েও জোরালো দাবি তোলেন। পাশাপাশি তারা বিপিএলের লভ্যাংশ বণ্টনের দাবিও উত্থাপিত হয়েছে। অবশ্য ফ্র্যাঞ্চাইজিরা লভ্যাংশ চাইলে তাদের ফ্র্যাঞ্চাইজি ফি বাড়ানোর কথা বলেছে বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিল।

তবে সবাইকে ছাপিয়ে লভ্যাংশ নিয়ে অনেক বেশি সিরিয়াস কুমিল্লা স্বত্বাধিকারী নাফিসা কামাল। অনেক কথার ভিড়ে নাফিসা কামাল বোঝানোর চেষ্টা করেন, আসলে বিপিএলে লভ্যাংশ বণ্টন জরুরি। বিশেষ করে গ্রাউন্ডসের আংশিক আর টিকিট বিক্রির স্বত্বটাও ফ্র্যাঞ্চাইজিদের দেয়ার দাবিতে সোচ্চার কুমিল্লা ফ্রাঞ্চাইজির মালিক।

তবে বিসিবি, এসিসি ও আইসিসির সাবেক প্রেসিডেন্ট এবং অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামালের কন্যা আজ বিসিবির এক তলার লাউঞ্জে লভ্যাংশ বণ্টন নিয়ে সাংবাদিকদের সাথে কথা বলতে গিয়ে রীতিমতো বোমা ফাটিয়েছেন।

তার দাবি, বিপিএল ফ্র্যাঞ্চাইজিদের জন্য মোটেই লাভজনক নয়। রীতিমতো ‘লস প্রজেক্ট’। এরপর একটি মারাত্মক কথা বেরিয়ে এসেছে তার মুখ থেকে। তিনি আগামী বছর কুমিল্লা ভিক্টোরিন্সকে বিপিএলে রাখবেন কি না সে শঙ্কার কথাও জানিয়েছেন।

নাফিসা কামাল বলেন, ‘সাত বছর আমরা বিপিএলে খেলে যাচ্ছি। আমরা পুরনো ফ্র্যাঞ্চাইজি। আমি মালিক হিসেবে সবচেয়ে পুরনো। সিলেটের সাথে ছিলাম। অথচ এখন পর্যন্ত ব্রেক ইভেনে আসতে পারিনি। কোন ফ্র্যাঞ্চাইজিই ব্রেক ইভেনে আসতে পারেনি। এটা আমাদের সবার জন্য লস প্রজেক্ট। আমি চিন্তা করছি, আগামী বছর বিপিএলে থাকব কি না। এই অবস্থায় শুধুই লাভবান হচ্ছে বিসিবি। অবশ্যই আমরা তার অংশ হতে চাইব। আমরা অনেক বড় একটি স্টেকহোল্ডার। এখানে পুরোপুরি ওয়ান সাইডেড টুর্নামেন্ট হচ্ছে। আমরা কিছুই পাচ্ছি না, শুধু দিয়েই যাচ্ছি।’

তিনি আরও বলেন, ‘রেভিনিউ শেয়ারিং মানে আমরা বলছি না সব টাকা আমাদের দিয়ে দিতে হবে। আমরা বলছি পারশিয়ালি গ্রাউন্ড রাইটস বা টিকিট রাইটস আমাদের অংশীদার করতে হবে। কীভাবে বিক্রি করব সেটা আমাদের দায়িত্ব।’

সোনালীনিউজ/এমএএইচ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Get it on google play Get it on apple store
Sonali Tissue