বুধবার, ২১ আগস্ট, ২০১৯, ৬ ভাদ্র ১৪২৬

ভাবির নগ্ন ভিডিও দেবরের মোবাইলে, অতঃপর...

বরিশাল ব্যুরো | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ০৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, শনিবার ১০:২০ পিএম

ভাবির নগ্ন ভিডিও দেবরের মোবাইলে, অতঃপর...

প্রতীকী ছবি

বরিশাল: জেলার গৌরনদী উপজেলার বাটাজোর ইউনিয়নের লক্ষণকাঠী গ্রামে ভাবিকে যৌন হয়রানি, উত্ত্যক্ত করা ও তার নগ্ন ভিডিও মোবাইলে ধারণ করে দেবর সুজন বেপারী। ওই নগ্ন ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ ইন্টারনেটে ছেড়ে দেয়ার হুমকি দিয়ে ভাবীকে কু-প্রস্তাব দিয়ে আসছিল বখাটে দেবর।

পরে ওই ঘটনায় শনিবার (৩ ফেব্রুয়ারি) সকালে ওই গৃহবধু গৌরনদী থানায় পর্নগ্রাফি আইনে বখাটে সুজন বেপারী (২৮) ও তার বন্ধু রিপন সরদারকে (৩০) আসামি করে থানায় মামলা দায়ের করেন।

পুলিশ মামলা দায়ের পর এজাহারভুক্ত ওই দুই জনকে গ্রেপ্তার করে ও তাদের মোবাইলে পাওয়া নগ্ন ভিডিওসহ মোবাইল জব্দ করেছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, বাবুগঞ্জ উপজেলার আগরপুর ইউনিয়নের রমজানকাঠী গ্রামের ওই তরুণীর ২ বছর পূর্বে গৌরনদী উপজেলার বাটাজোর ইউনিয়নের লক্ষণকাঠী গ্রামের নুর আলম বেপারীর ছেলে সুমন বেপারীর সঙ্গে বিয়ে হয়। বিয়ের দেড় মাস পর সুমন বেপারী তার নববধূকে বাড়ি রেখে দুবাই চলে যান।

ওই গৃহবধু অভিযোগ করেন, তার স্বামী বিদেশে যাওয়ার পর থেকে তার বখাটে দেবর যৌন হয়রানিসহ কুপ্রস্তাব দিয়ে আসছে। কিন্তু সুজনের কু-প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় গত বছর ৭ আগষ্ট থেকে ১০ নভেম্বর মধ্যে যে কোনো এক দিন গৃহবধু পোষাক পরিবর্তন করার সময় দেবর ঘরের মধ্যে গোপনে মোবাইলে নগ্ন ভিডিও ধারণ করে।

পরবর্তীতে বৃহস্পতিবার (১ ফ্রেরুয়ারি) ওই ভিডিও ফুটেজ সুজন তার বন্ধু রিপনের মোবাইলে শেয়ার করে। নগ্ন ভিডিও বখাটে দেবর সুজন ভাবিকে দেখিয়ে কু-প্রস্তাবসহ মোটা অংকের টাকা দাবি করে। গৃহবধূ তার প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় শুক্রবার (২ ফ্রেরুয়ারি) সকালে রিপন সরদার ওই গৃহবধূর ভাই নয়ন বেপারীসহ বিভিন্ন মোবাইলে নগ্ন ভিডিও ছড়িয়ে দেয়।

এ বিষয়ে গৌরনদী মডেল থানার ওসি মো. আফজাল হোসেন জানান, ঘটনার শিকার গৃহবধূ শনিবার সকালে বখাটে সুজন বেপারী ও তার বন্ধু রিপন সরদারকে আসামি করে মামলা দায়ের করেন। মামলা দায়ের পর মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই মোশারেফ হোসেন এজাহারভুক্ত ওই দুই আসামিকে গ্রেপ্তার করে ও তাদের মোবাইলে পাওয়া নগ্ন ভিডিওসহ মোবাইল ফোন জব্দ করেছেন।

গ্রেপ্তারদের ওই দিন বিকেলে বরিশাল জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে হাজির করলে আদালত তাদের কারাগারে প্রেরন করেন বলেও জানান তিনি।

সোনালীনিউজ/এমএইচএম

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Get it on google play Get it on apple store
Sonali Tissue