শুক্রবার, ১৫ নভেম্বর, ২০১৯, ৩০ কার্তিক ১৪২৬

সচিবালয়ের গেটে শুয়ে পড়ল পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারিরা

নিজস্ব প্রতিবেদক | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ১৭ জুলাই ২০১৯, বুধবার ০১:৪১ পিএম

সচিবালয়ের গেটে শুয়ে পড়ল পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারিরা

ঢাকা : রাষ্ট্রীয় কোষাগার থেকে বেতন-ভাতার দাবিতে উত্তাল হয়ে উঠেছে ঢাকা প্রেসক্লাব চত্ত্বর। বুধবার (১৭ জুলাই) চতুর্থ দিনে গড়াল পৌর কর্মকর্তা-কর্মচারিদের অবস্থান কর্মসূচি।

বুধবার (১৭ জুলাই) সকালে কর্মসূচি পালনরত পৌরসভার কর্মচারিরা সচিবালয়ের গেটে গিয়ে অবস্থান নেয়। এ সময় পৌরসভার নারী কর্মকর্তা-কর্মচারিরা গেটের সামনেই শুয়ে পড়ে বেতন-ভাতার দাবিতে নানা স্লোগান দিতে থাকেন। শান্তিপূর্ন এই কর্মসূচিতে পুলিশ কোনো বাঁধা দেয়নি।

পরে বাংলাদেশ পৌরসভা সার্ভিস অ্যাসোসিয়েশনের (বিএপিএস) সভাপতি আব্দুল আলিম মোল্যার নির্দেশে সচিবালয়ের গেট থেকে পৌরসভার কর্মচারিরা আবার প্রেসক্লাবে গিয়ে অবস্থান নেয়।

সেখানে সংক্ষিপ্ত বক্তব্য রাখেন বিএপিএস সভাপতি। তিনি পৌর কর্মচারিদের উদ্দেশ্যে বলেন,‘ আপনারা ধৈয্য সহকারে কর্মসূচি পালন করুন। কোনো প্রকার বিশৃঙ্খলা করবেন না। আমি আপনাদের সচিবালয়ের গেটে যাওয়ার  নির্দেশ দেইনি। কাজেই এ ধরণের ঘটনার পুনরাবৃত্তি আর করবেন না।’

আব্দুল আলিম মোল্যা আরও বলেন,‘ দাবি আদায়ে আমাদের সুসংহত থাকতে হবে। কেউ যদি মনে করেন, একদিন-দুদিনে দাবি আদায় করে ঘরে ফিরে যাবেন তাদের ধারণা ভুল। দাবি আদায় করতে হলে আমাদের কর্মসূচি চালিয়ে যেতে হবে। কখন কি করতে হবে সেই নির্দেশনা সময় মতোই আসবে। আপনাদের অধৈয্য হওয়ার কোনো কারণ নেই।’

এদিকে, দেশের ৩২৮টি পৌরসভায় চারদিন ধরে দাপ্তরিক সকল সেবা বন্ধ রয়েছে। এতে চরম দূর্ভোগে পড়েছে পৌর এলাকার বাসিন্দারা। জেলা ও উপজেলা শহরগুলোতে চার দিন ধরে ময়লা-আবর্জনা পরিষ্কার না করায় শহরের অলিগলিতে জমেছে ময়লার স্তূপ। সড়কবাতি না জ্বলায়  অন্ধকার হয়ে আছে পৌর এলাকা। টিকাদান কর্মসূচি বন্ধ রয়েছে। কর সংগ্রহ, নাগরিক সনদ প্রদান, ট্রেড লাইসেন্স, জন্ম-মৃত্যু নিবন্ধনসহ দৈনন্দিন কার্যক্রম বন্ধ থাকায় সেবাগ্রহীতারা পৌরসভায় এসে ফিরে যাচ্ছেন।

পৌরসভার সব সেবা বন্ধ করে গত রোববার রমনার ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশনে মহাসমাবেশ করে পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারিরা। সেখান থেকে সিদ্ধান্ত হয় রাষ্ট্রীয় কোষাগার থেকে বেতন-ভাতার এক দফা দাবি আদায় না হওয়া অবধি প্রেসক্লাবের সামনে অবস্থান কর্মসূচি চলবে।

সোনালীনিউজ/আরআইবি/এমটিআই

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Get it on google play Get it on apple store
Sonali Tissue