বুধবার, ১৬ অক্টোবর, ২০১৯, ১ কার্তিক ১৪২৬

কথা রাখলেন কুষ্টিয়ার এসপি

১০৩ টাকায় পুলিশে চাকরি!

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি | সোনালীনিউজ ডটকম
আপডেট: ০৬ জুলাই ২০১৯, শনিবার ০২:০০ পিএম

১০৩ টাকায় পুলিশে চাকরি!

কুষ্টিয়া : পুলিশের চাকুরী তাও আবার ঘুষ ছাড়া! অনেকেই অবাক হয়েছেন। কেউ আবার বিশ্বাস করতে পারেনি। কিন্তু কুষ্টিয়া পুলিশ সুপার এসএম তানভীর আরাফাত পিপিএম (বার) সেই অবিশ্বাস্য কাজ করে দেখিয়েছেন। মাত্র ১০৩ টাকায় পুলিশ কনস্টেবল পদে চাকুরী মিলেছে ৭৫ জনের। এখন শুধু মেডিকেল করা বাকি।

পুলিশ সুপার এসএম তানভীর আরাফাত পিপিএম (বার) বিগত ১৫ই সেপ্টেম্বর ২০১৮ তারিখ কুষ্টিয়া জেলায় যোগদান করেন। তার উদ্দেশ্য ছিল সকল অপরাধ, জঙ্গী ও মাদক নিয়ন্ত্রন সহ নানাবিধ জনহিতকর কাজ করা। ইতিমধ্যে তিনি অনেকটা সফলতা মুখ দেখেছেন। তিনি বিভিন্ন এলাকায় এলাকায় গিয়ে গ্রাম্য কাইজা, বাল্যবিবাহ, মাদক নিয়ন্ত্রণে গণসচেতনতা সৃষ্টি করে চলেছে। সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ ও মাদক কারবারি দের বিরুদ্ধে কঠোর হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেছেন।

ইতিমধ্যে তিনি প্রায় ৩শ জন মাদক কারবারিকে শপথ পাঠ করিয়েছেন। যেন তাঁরা মাদক ব্যবসা থেকে বিরত থাকে। রক্তাক্ত জনপদ নামে খ্যাত ঝাউদিয়া ইউনিয়নকে শান্ত করতে তিনি নিজে গিয়ে সামাজিক দু দলের প্রধান কে সমস্ত দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে আত্মসমর্পণ করান। সেই অনুষ্ঠানে তিনি সকল দাঙ্গা সৃষ্টিকারীদের কঠোর হুঁশিয়ারি দিয়ে আসে। তার পর থেকেই এখন পর্যন্ত এলাকায় কোন প্রকার গ্যাঞ্জাম হয়নি। তিনি প্রতিটি থানার অফিসার ইনচার্জ দের দিয়ে বাল্যবিবাহ, মাদক ও ইভটিজিং রোধ স্কুলে স্কুলে সচেতনতা মূলক আলোচনা সভা করিয়েছেন।

মাত্র ১ শ’ ৩ টাকা পুলিশ কনস্টেবল পদে চাকুরী মিলেছে ৭৫ জনের। এখন শুধু মেডিকেল করা বাকি।

ইতিমধ্যে তিনি কুষ্টিয়া জেলাবাসীর হৃদয়ের মনিকোঠায় যায়গা করে নিয়েছেন। কুষ্টিয়া জেলাবাসী তার প্রতি দারূন অনুরক্ত এবং হ্যামিলনের সেই বাশীওয়ালার বাশির সুরের মত তার সব জনকল্যান জনসম্পৃক্ত জনহিতকর কাজ নামের বাশির সুরে সবায় বিমোহিত৷

তিনি ঘোষনা দিয়েছিলেন, পুলিশের ট্রেইনি রিক্রুট কনস্টেবল পদে চাকুরী পেতে ১০৩ টাকার বেশী খরচ করতে হবেনা। এজন্য কোন প্রকার ঘুষ লেন দেনেও নিষেধাজ্ঞা জারী করেছিলেন তিনি।

এ বিষয়ে ছিল তার সদা জাগ্রত নজরদারী। তার প্রমাণ মিলেছে, পুলিশ সুপারের আত্বীয় পরিচয় দিয়ে চাকুরী দেয়ার কথা বলে ১০লক্ষ টাকা লেনদেনের করার সময় একজনকে আইনের আওতায় আনা।

তিনি কোন ঘুষ লেনদেন ছাড়াই সম্পুর্ণ মেধা আর যোগ্যতার ভিত্তিতে ৭৫ জন মেধাবী যোগ্য প্রার্থীদের মেডিক্যাল ছাড়া নিয়োগ প্রক্রিয়ার অন্য সকল ধাপ সম্পন্ন করেছেন৷ সকল প্রকার প্রভাবের উর্ধে থেকে তিনি গত ৪ জুলাই ২০১৯ তারিখ সব ইলেকট্রনিক আর প্রিন্ট মিডিয়া ব্যক্তিত্বের সামনেই ফলাফল ঘোষনা করেছেন৷ আজ থেকে কুষ্টিয়া জেলাবাসীর ধারনা আরো দৃঢ় হয়েছে যে ঘুষ লেনদেন ছাড়াও বাংলাদেশে পুলিশের চাকুরী হয়। হয় এই কারনে যে দেশ প্রেমিক বাংলাদেশ পুলিশ বাহিনীতে এস এম তানভীর আরাফাত পিপিএম (বার) এর মত ব্যক্তিত্ব আছেন বলেই।

সোনালীনিউজ/এমটিআই

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন

Get it on google play Get it on apple store
Sonali Tissue