• ঢাকা
  • শনিবার, ৩১ অক্টোবর, ২০২০, ১৬ কার্তিক ১৪২৭
Sonalinews.com

সাদেক বাচ্চুর মৃত্যুতে বুবলির আবেগী ফেসবুক স্ট্যাটাস  


বিনোদন ডেস্ক সেপ্টেম্বর ১৪, ২০২০, ০২:৫৩ পিএম
সাদেক বাচ্চুর মৃত্যুতে বুবলির আবেগী ফেসবুক স্ট্যাটাস  

ঢাকা : করোনাভাইরাসে আক্রান্ত বিশিষ্ট চলচ্চিত্র অভিনেতা সাদেক বাচ্চু মারা গেছেন। এনিয়ে আবেগঘন একটি স্ট্যাটাস দিয়েছেন এই সময়ের জনপ্রিয় তারকা বুবলি।

সোমবার (১৪ সেপ্টেম্বর) দুপুর ১২টা ৫ মিনিটে  মহাখালীর ইউনিভার্সেল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেন এই অভিনেতা (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। তাঁর বয়স হয়েছিল ৬৫ বছর।

বুবলির ফেসবুক স্ট্যাটাস পুরোপুরি পাঠকদের জন্য তুলে ধরা হলো।

আংকেল, আমার প্রত্যেকটি সিনেমাতেই সৌভাগ্য হয়েছিল আপনার সঙ্গে অভিনয় করবার। কি স্নেহ করতেন, শুটিংয়ের ফাঁকেই একটু সুযোগ হলেই কত কত অভিজ্ঞতা শেয়ার করতেন। নানান সিনেমার গল্প বলতেন আর তার মাঝখানেই আবার বলতেন “মামনি, তোমার আন্টিকে একটা ফোন দিয়ে নেই দাঁড়াও, কথা বলো আন্টির সঙ্গে। একদিন বাসায় এসে আন্টির সঙ্গে দেখা করে, গল্প করো, ভালো লাগবে”।

আন্টির সঙ্গে ফোনে কথাও হয়েছিল। যাবও বাসায় বলেছিলাম। কিন্তু আপনিই তো চলে গেলেন আংকেল। বাংলা চলচ্চিত্রসহ আমরা সবাই একজন অভিজ্ঞ গুণী শিল্পীকে হারালাম। ভালো থাকবেন আংকেল।

এর আগে ইউনিভার্সেল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ডা. আশীষ কুমার চক্রবর্তী তার মৃত্যুর নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, ‘সকাল থেকে দুবার তাঁর হার্ট ফেল হয়েছে। দুপুর ১২টা ৫ মিনিটে তাঁকে মৃত ঘোষণা করেছি আমরা।’

সম্প্রতি জ্বরে আক্রান্ত হন সাদেক বাচ্চু। পরে তার শ্বাসকষ্ট দেখা দিলে গেল ৬ সেপ্টেম্বর তাকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়। গত শনিবার (১২ সেপ্টেম্বর) তার পরিবার সূত্রে জানা যায় এ অভিনেতা করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন।

এরপর শ্বাসকষ্ট বেড়ে গিয়ে সাদেক বাচ্চুর শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটায় শনিবার রাতে তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ থেকে ইউনিভার্সেল হাসপাতালে নেওয়া হয়। সেখানে হাসপাতালটির কোভিড ইউনিটের নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) ছিলেন এই অভিনেতা। তার শরীরের আর উন্নতি হয়নি।

রোববার থেকেই তার হার্ট ও ফুসফুস ৮৫ শতাংশ অকেজো ছিলো। আজ সোমবার সকাল থেকেই কয়েকদফায় তার হার্টবিট বন্ধ হয়ে আবার চালু হয়েছে। ভেন্টিলেটরে থাকা অবস্থাতেই অবশেষে চলে গেলেন আজ না ফেরার দেশে।

সোনালীনিউজ/এএস 

Side banner