• ঢাকা
  • শুক্রবার, ০৭ অক্টোবর, ২০২২, ২১ আশ্বিন ১৪২৯

পূর্ণিমার ‘আহারে জীবন’


বিনোদন প্রতিবেদক সেপ্টেম্বর ২৩, ২০২২, ১২:৫১ এএম
পূর্ণিমার ‘আহারে জীবন’

ঢাকা :  দিলারা হানিফ পূর্ণিমা। ঢাকাই চলচ্চিত্রের শীর্ষ তারকাদের একজন। ঢাকার চলচ্চিত্র যখন অন্ধকারে নিমজ্জিত হতে থাকে, নায়িকা সংকটে ভোগে, ঠিক তখনই আগমন ঘটে তার। অন্ধকারেও আশার আলো ছড়িয়ে দেন তিনি। 

প্রথম ছবি ‘মনের মাঝে তুমি’র মাধ্যমে ক্যারিয়ারের শুরুটাও যেন উজ্জ্বল করে তোলেন পূর্ণিমা। এরপর জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পেয়ে আরও একধাপ উচ্চতায় ওঠেন তিনি। দীর্ঘ ক্যারিয়ারে কখনো সুপারহিট আবার কখনো ফ্লপ সিনেমাও উপহার দিয়েছেন তিনি। 

ক্ষুরধার অভিনয় ও  গ্লামারাস লুকের কারণে সবসবই তিনি ছিলেন পরিচালক ও দর্শকের চাহিদার শীর্ষে। তার আচ পাওয়া যায়, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। নিজের অ্যাকাউন্টে ছবি আপলোড করলেই, তা হু হু কওে উড়ে অন্তর্জালে। সমপ্রতি বিয়ের পর নতুন করে এলেন আলোচনায়। এরইমধ্যে স্বামীকে নিয়ে মধুচন্দ্রিমা শেষ করে দেশে ফিরেছেন। দেশে ফিরেই চুক্তিবদ্ধ হলেন নতুন সিনেমায়। এর নাম ‘আহারে জীবন’। 

সরকারি অনুদানপ্রাপ্ত এই সিনেমাটি পরিচালনা করবেন খ্যাতিমান পরিচালক ছটকু আহমেদ। এতে পূর্ণিমার বিপরীতে অভিনয় করবেন চিত্রনায়ক ফেরদৌস। এতে আরও অভিনয় করবেন ওমর সানি, মিশা সওদাগর, অরুণা বিশ্বাস, শাহনূর, সুব্রত প্রমুখ। বুধবার দুপুরে ছবিটিতে অভিনয়ের জন্য চুক্তিপত্রে স্বাক্ষর করেন বলে নিশ্চিত করেছেন পূর্ণিমা নিজে। 

পূর্ণিমা বলেন, ‘এটা সরকারি অনুদানের সিনেমা। ছটকু আহমেদ ভাই অনেক সিনিয়র পরিচালক, অনেকদিন ধরেই ছবিটির বিষয়ে আমার সাথে কথা বলছিলেন। এখানে মিশা সওদাগর ভাই আছেন, যেহেতু ছটকু চাই উনার ওস্তাদ। ফেরদৌসও আছেন। 

এরপর ভাবলাম কাজটি করা যায়। এরপর আজকে ছটকু ভাই বাসায় আসলেন, গল্প শোনালেন। গল্প শুনে ভালো লেগেছে। এরপরই চুক্তিতে স্বাক্ষর করি।’ 

তিনি আরও বলেন, ‘ছবির গল্পটি করোনাকালীন সময়ে ঘটে যাওয়া বিভিন্ন সিচুয়েশন নিয়ে। এর বেশি আপাতত কিছু না বলি। অক্টোবরের মাঝামাঝি সময়ে ঢাকাতে এর শুটিং শুরু হবে।’

জানা গেছে, আগামী ১৬ অক্টোবর রাজধানীর উত্তরার বিভিন্ন লোকেশনে এ সিনেমার শুটিং শুরু হবে। পূর্ণিমা সর্বশেষ নঈম ইমতিয়াজ নেয়ামুল পরিচালিত ‘গাঙচিল’ এবং ‘জ্যাম’ নামের দুটি সিনেমায় অভিনয় করেছিলেন। 

এই সিনেমা দুটি মুক্তির অপেক্ষায় রয়েছে। পূর্ণিমাকে বিশেষ বিশেষ দিবসে পাওয়া গেছে ছোট পর্দায়ও। এ মাধ্যমটি নিয়েও তার রয়েছে বেশ আগ্রহ। তবে শর্ত আছে। মনের মত গল্প না পেলে প্রস্তাবে সাড়া দিবেন না বলেও জানান তিনি। 

প্রায় দুই দশকের ক্যারিয়ারের অভিজ্ঞতা থেকে পূর্নিমা বলেন, ‘শুধু আমি কেন, দর্শকরা ভালো গল্প চান। ভালো গল্প হলে দর্শকরা অবশ্যই প্রেক্ষগৃহ ও টিভির সামনে বসবেন। যেসব সিনেমার গল্প স্ট্রং সেসব সিনেমা দেখতে এখনও দর্শকরা প্রেক্ষাগৃহে ভিড় করেন।’

সোনালীনিউজ/এমটিআই

Wordbridge School
Sonali IT Pharmacy Managment System