• ঢাকা
  • বুধবার, ২৭ অক্টোবর, ২০২১, ১২ কার্তিক ১৪২৮

সেলস ফানেল স্পেশালিষ্ট হিসেবে কাজ করছেন আসিফ


সাজেদুর আবেদীন শান্ত অক্টোবর ১২, ২০২১, ০৭:৩৩ পিএম
সেলস ফানেল স্পেশালিষ্ট হিসেবে কাজ করছেন আসিফ

ছবি : উদ্যোক্তা সাব্বির রহমান আসিফ

ঢাকা : বর্তমান সময়ের ডিজিটাল মার্কেটিং এর মাধ্যমে ব্যাবসার প্রসারের দিকে ঝুকচ্ছে বড় বড় ব্যবসা প্রতিষ্ঠানগুলো। পিছিয়ে নেই নতুন উদ্যোক্তারাও। তেমনি এক নতুন উদ্যোক্তা সাব্বির রহমান আসিফ। যিনি কিনা খুব অল্প সময়েই হয়েছেন সফল। সাব্বির রহমান আসিফ অনলাইন ভিত্তিক ডিজিটাল মার্কেটিং এজেন্সি গ্রোথ আস্ক এর প্রতিষ্ঠাতা। তিনি ১৭টি দেশের বিভিন্ন কোম্পানির সাথে কাজ করেছেন মিডিয়া বায়ার ও সেলস ফানেল স্পেশালিষ্ট হিসেবে।

সেলস ফানেলের সম্পর্কে জানতে চাইলে আসিফ বলেন, ‘ব্যবসায় লাভবান হতে সেলস ফানেল এর বিকল্প নেই। তবে এর গুরুত্ব বুঝতে হলে জানতে হবে সেলস ফানেল কী? উদাহরণ হিসেবে একটি গল্পের সাহায্য নেওয়া যাক। ধরুন আপনি এক জোড়া জুতো কেনার জন্য আগ্রহী। এমন সময় ‘ক’ একজন বিক্রয়কর্মী এসে আপনাকে তাদের কোম্পানির জুতো দেখিয়ে বললো তাদের কোম্পানির জুতো সবচেয়ে ভাল। দাম ১০০০ টাকা।

এমন সময় ‘খ’ আরেক বিক্রয়কর্মী আপনাকে তাদের কোম্পানির জুতো কেন ভালো? কি ম্যটেরিয়াল দিয়ে তৈরি, কীভাবে ব্যবহার করলে জুতো জোড়া সহজে ছিড়ে বা নস্ট হয়ে যাবে না এ সকল সম্পর্কে ব্যখ্যা করলো এবং পরিশেষে বললো দাম ১০০০ টাকা। এখানে কোন বিক্রয়কর্মীর পন্য বিক্রয় হওয়ার সম্ভাবনা সবচেয়ে বেশি? নিশ্চই ‘খ’ বিক্রয়কর্মীর। কারন ভোক্তা বা গ্রাহক তখনই আপনার পন্য ক্রয় করবে যখন ভোক্তা বা গ্রাহক আপনার পণ্যের উপর আস্থা আনতে পারবে। যেভাবে ‘খ’ বিক্রয়কর্মী তার পন্য সম্পর্কে আপনাকে বিস্তারিত ব্যখ্যা করেছে। প্রথমে পন্যের তথ্য, কেন আপনার ক্রয় করা উচিত, এই প্রসেসটাই মূলত সেলস ফানেল। 

A.I.D.A ফর্মূলা দিয়ে আরো সহজ ভাবে বলতে গেলে সেলস ফানেল মূলত ৪ টি ধাপে বিভক্ত।

I. Awareness বা সখ্যতা সৃষ্টি। একটি নতুন পণ্য বা সেবা বিক্রয় এর প্রথম ধাপ হচ্ছে সখ্যতা সৃষ্টি। এর মাধ্যমে আপনার পণ্য বা সেবা সম্পর্কে গ্রাহকরা জানতে পারবে।

II. Interest বা আস্থা সৃষ্টি। বাজারে একই পণ্য বা সেবা অনেকেই বিক্রয় করছে কিন্তু গ্রাহক তাদের কাছ থেকেই পণ্য বা সেবা ক্রয় করে থাকে যাদের উপর আস্থা আছে।

III. Desire বা আগ্রহ তৈরি। বিভিন্ন শপে যখন ডিস্কাউন্ট বা মূল্যছাড় দেওয়া হয়, তখন সাধারণের তুলনায় বেশি গ্রাহক হয়। কারন ডিস্কাউন্ট বা মূল্যছাড় এর মাধ্যমে গ্রাহকদের আগ্রহ তৈরি হয়।

VI. Action বা সেলস গ্রাহক যখন একটি পণ্য বা সেবা সম্পর্কে জানবে, পণ্য বা সেবা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠানের উপর আস্থা আনতে পারবে তখনই কেবল বিক্রয় বা সেলস সম্ভব হবে। আপনি খেয়াল করলেই বঝুতে পারবেন এই ফর্মূলার মাধ্যমেই ব্যান্ডগুলো আপনার কাছে পন্য বিক্রয় করে থাকে। 

বর্তমানে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান, ফেসবুক বুস্টিংকে ডিজিটাল মার্কেটিং বলে চালিয়া দিচ্ছে। কোথাও ডিজিটাল মার্কেটিং সেবা নেওয়ার আগে ব্যসিক মার্কেটিং সম্পর্কে যথেষ্ট জ্ঞান নিয়ে তারপর কোনো প্রতিষ্ঠান থেকে সেবা বা সার্ভিস নিতে হবে বলে জানান আসিফ। বিগত বছরগুলোতে তার এজেন্সি ‘গ্রোথ আস্ক’ বিভিন্ন দেশের কোম্পানির সাথে কাজ করে আসছে মিডিয়া বায়িং ও সেলস ফানেল নিয়ে।

সোনালীনিউজ/এসএন

Haque Milk Chocolate Digestive Biscuit
Wordbridge School
Sonali IT Pharmacy Managment System