• ঢাকা
  • শনিবার, ২১ মে, ২০২২, ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯

ফেসবুকে ডা. মুরাদের কাণ্ড 


নিউজ ডেস্ক ডিসেম্বর ৭, ২০২১, ০৭:৪৩ পিএম
ফেসবুকে ডা. মুরাদের কাণ্ড 

ছবি : সংগৃহীত

ঢাকা : বিতর্কিত মন্তব্যের জেরে বেশ কয়েকদিন ধরেই আলোচনা-সমালোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে আছেন ডা. মুরাদ হাসান। নারীর প্রতি অবমাননাকর বক্তব্য ও ফোনালাপ ফাঁসের জেরে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রীর পদ থেকে সরে দাঁড়ানো মুরাদ হাসান এবার জেলা আওয়ামী লীগের স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদকের পদ থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে।

সাম্প্রতিক সময় রাষ্ট্রধর্ম, রাজনীতি, খালেদা জিয়ার নাতনি ও সবশেষ ফোনালাপ ফাঁস নিয়ে ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়েন তিনি। 

তার উল্টাপাল্টা মন্তব্য এবং অস্বাভাবিক আচরণের কারণে দলীয় সহকর্মীদেরও বিব্রত হতে হয়েছে। মঙ্গলবার (৭ ডিসেম্বর) মন্ত্রী হাছান মাহমুদ বলেছেন, প্রতিমন্ত্রী হিসেবে সবসময় মুরাদ হাসানের সহযোগিতা পেয়েছি। তবে গেল তিন মাস ধরে তার আচরণে পরিবর্তন দেখেছি।

এদিকে সবকিছুর জন্য ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়ে ক্ষমা চেয়েছেন মুরাদ। মঙ্গলবার (৭ ডিসেম্বর) দুপুরে ফেসবুকে এক স্ট্যাটাস দেন। সেখানে তিনি তার ভুলের জন্য ক্ষমা চান।

তিনি লেখেন, ‘আমি যদি কোনো ভুল করে থাকি অথবা আমার কথায় মা-বোনদের মনে কষ্ট দিয়ে থাকি তাহলে আমাকে ক্ষমা করে দেবেন। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী মমতাময়ী মা দেশরত্ন বঙ্গবন্ধু কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনার সকল সিদ্ধান্ত মেনে নেব আজীবন। জয় বাংলা জয় বঙ্গবন্ধু’।

এর পর তিনি তার নিজের স্ট্যাটাসে নিজেই কমেন্ট করে। যা হাসির খোরাক জোগায় নেটিজনদের। তিনি কমেন্টেসে লিখেন, “ ভুল করে সবাই নিজের ভুল মেনে নেওয়ার সততা দেখায় না। আল্লাহ আপনাকে সঠিকভাবে ফিরিয়ে আনুন সকলের মাঝে।”

এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত তার এই কমেন্টে প্রায় ১০ হাজার রিঅ্যাকশন ও প্রায় দুই হাজারের বেশি কমেন্টেসের রিপ্লাই আসে।

করিম খান নামে একজন কমেন্ট করেছেন, “নিজের পোস্টে নিজেই সান্তনা দিচ্ছে”। প্রিন্স নামে একজন লিখেন, “চিটারি করতে গিয়ে ধরা খাইছে”। শান্তা নামে একজন কমেন্ট করেছেন, “বেচারা ভুলে রিয়েল আইডি থেকে কমেন্ট করে ফেলছে।”

এর আগে বিতর্কিত মন্তব্য আর কল রেকর্ড ফাঁসের পর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ‘অসন্তোষ’ বুঝতে পেরে ঢাকার বাসভবন থেকে সকালেই চট্টগ্রামের পথ ধরেন তথ্য প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসান। সোমবার (৬ ডিসেম্বর) দুপুর ২টা থেকেই তিনি অবস্থান করছেন চট্টগ্রামের স্টেডিয়াম পাড়ার পাঁচতারকা হোটেল রেডিসন ব্লুতে।

নির্ভরযোগ্য সূত্রে জানা গেছে, সোমবার (৬ ডিসেম্বর) দুপুরে চট্টগ্রামের রেডিসন ব্লুতে আসেন তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের বিতর্কিত এই প্রতিমন্ত্রী। সন্ধ্যায় যখন প্রধানমন্ত্রীর আদেশের বিষয়টি দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের সংবাদ সম্মেলনে প্রকাশিত হয়, তখনও ডা. মুরাদ হাসান চট্টগ্রামের রেডিসন ব্লুতেই ছিলেন। ঢাকা থেকে একা এসে রেডিসন ব্লু বে ভিউ হোটেলে ওঠেন ডবল বেডের বিলাসী কক্ষে। গতকাল রাত ২টা পর্যন্ত সেখানেই অবস্থান করছিলেন তিনি। তবে এখন ডা. মুরাদ হাসান কোথায় রয়েছে সে বিষয়ে কিছু জানা যায়নি।

সোনালীনিউজ/এমএএইচ 

Wordbridge School
Sonali IT Pharmacy Managment System