• ঢাকা
  • শনিবার, ২৮ মে, ২০২২, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯

সঞ্চয়পত্র নিয়ে কিছু ভালো ও খারাপ অভিজ্ঞতা


নিউজ ডেস্ক জানুয়ারি ২৬, ২০২২, ০৭:১৫ পিএম
সঞ্চয়পত্র নিয়ে কিছু ভালো ও খারাপ অভিজ্ঞতা

ঢাকা: সঞ্চয়পত্র কিনতে গিয়ে কিছু ভালো ও খারাপ অভিজ্ঞতার বর্ণনা দিয়েছেন এক ব্যক্তি। নিজের ফেসবুকে এক পোস্টে তিনি লিখেছেন, ‘সিটি ব্যাংকে আমার আগে থেকেই একাউন্ট ছিলো এবং এফ ডি আর ও।’

কুমিল্লা শাখায় যাওয়ার পর ওনারা বলল এই শাখায় এখনো কেউ করেনি। আমি চাইলে করবে কিন্তু সময় লাগবে। তাছাড়াও তাদের খুব একটা ইন্টারেষ্টেড মনে হলো না।

গেলাম ব্রাক ব্যাংকে। সেখানে বেশ আগ্রহ দেখালো, বলল টাকা আসলে ১ সপ্তাহের মধ্যে করে দিবে। একাউন্ট খুলে টাকা এনেছি ডিসেম্বরের ৯-১০ তারিখের দিকে। টাকা আসার পর তাদের কথায় বেশ পরিবর্তন দেখলাম।

ব্যাংকের ব্রাঞ্চ অপারেশন ম্যানেজার জানালো ডিসেম্বরে ওনারা সঞ্চয়পত্র কোন ভাবেই করতে পারবেন না। জানুয়ারিতে প্রথম সাপ্তায় করে দিবেন আর তার এক সপ্তাহ পর এক্টিভ হবে।

ওনার সাথে আরও কিছু কথা বলার পর যেটা স্পষ্ট বুঝতে পেড়েছি। ওনি টাকাটা ডিসেম্বর পর্যন্ত এই ব্রাঞ্চে রাখতে পারলে এটা ব্রাঞ্চের পারফরম্যান্স ওপর একটা ভালো প্রভাব রাখবে।

তাছাড়া ১ সপ্তাহের মধ্যে ৮০০ টাকার উপর কেটে নিয়েছে বিভিন্ন ব্যাংক চার্জ বাবদ। টাকা কেটে নেওয়ার পর কোন এস এম এস ও পাইনি।

সেদিনি সোনালী ব্যাংকে একাউন্ট খুলে, টাকা ট্রান্সফার করে ৩ দিনের মধ্যে (একাউন্ট ওপেন করে টাকা আনতে দুই দিন সঞ্চয়পত্র একদিনেই) সঞ্চয়পত্র ও সাথে মিলওনিয়ার স্কিম এক্টিভ আর সব রিসিপ্ট হাতে পেয়ে গেছি। 

সোনালী ব্যাংক, কুমিল্লা কর্পোরেট শাখার সংস্লিষ্ট সবাইকে আন্তরিক ধন্যবাদ।

সোনালীনিউজ/আইএ

Wordbridge School
Sonali IT Pharmacy Managment System