• ঢাকা
  • সোমবার, ২৭ জুন, ২০২২, ১৩ আষাঢ় ১৪২৯

ইউটিউব থেকে মাসে ২ লাখের বেশি ইনকাম করার উপায়


নিউজ ডেস্ক জুন ১৪, ২০২২, ০৪:৩৩ পিএম
ইউটিউব থেকে মাসে ২ লাখের বেশি ইনকাম করার উপায়

ঢাকা : বিশ্বব্যাপী ২০০ কোটির বেশি মানুষ নিয়মিত ইউটিউবে ভিডিও দেখেন। ফলে এটি বিশ্বের অন্যতম জনপ্রিয় ভিডিও স্ট্রিমিং প্ল্যাটফর্ম তৈরি হয়েছে। প্রত্যেক মিনিটে এই প্ল্যাটফর্মে ৫০০ ঘণ্টা ভিডিও স্ট্রিম হয়। ইউটিউবে এখন শুধু বিভিন্ন ভিডিও দেখাই নয়, ভিডিও আপলোড করে মাসে আয় করা যায় লাখ লাখ টাকা। তবে শুরুতেই ইউটিউব থেকে ইনকাম করা যায় না। ইউটিউব থেকে রোজগারের জন্য চ্যানেলে অন্তত এক হাজার সাবস্ত্রাইবার থাকতে হবে।

সাবস্ক্রাইবার প্রতি আপনি কোনো টাকা পাবেন না। তবে যত বেশি সাবস্ক্রাইবার থাকবে রোজগারের সম্ভাবনা ততই বেশি হবে। এক হাজার সাবস্ক্রাইবারের সঙ্গেই আয় শুরুর জন্য বিগত ১২ মাসে প্রয়োজন হবে চার হাজার ঘণ্টা ভিউ। যত বেশি ভিউ পাবেন রোজগারের সম্ভাবনা ততই বাড়তে থাকবে। তবে আপনার ভিডিওর উপরে দেখানো লিঙ্কে ক্লিক করে কেউ সম্পূর্ণ বিজ্ঞাপন দেখলে তবেই রোজগার হবে ইউটিউব থেকে।

এছাড়াও ইউটিউব পার্টনার প্রোগ্রামের (YPP) মাধ্যমে ইউটিউব থেকে লাখ টাকা রোজগার সম্ভব। নিজের ইউটিউব চ্যানেল থেকে রোজগারের ইচ্ছা থাকলে এই প্রোগ্রামের অংশ হতে হবে। এজন্য কয়েকটি শর্ত পূরণ করতে হবে। চ্যানেলে অন্তত এক হাজার সাবস্ক্রাইবার থাকতে হবে। তবে এক্ষেত্রে আপনাকে কিছু নিয়ম মেনে কাজ করতে হবে। তাহলেই মাসে ২ লাখেরও বেশি টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

চলুন জেনে নেওয়া যাক কী করবেন, কী করবেন না: 

১. ইউটিউব পার্টনার প্রোগ্রামের অধীনে থাকা কোনো সদস্য একই ভিডিও একাধিকবার আপলোড করতে পারবেন না। এই কাজ করলে যে কোনো সময় এই প্রোগ্রাম থেকে আপনাকে বার করে দিতে পারে ইউটিউব। এছাড়াও কোনো সদস্য এই প্রোগ্রামের অধীনে থাকবে তা ঠিক করার সিদ্ধান্ত নেওয়ার ক্ষমতা রয়েছে ইউটিউবের কাছে। একবার ইউটিউব পার্টনার প্রোগ্রামের সদস্য হয়ে যাওয়ার পরেও নিয়মিত সব নিয়ম মেনে চলতে হবে আপনাকে। নিয়ম লঙ্ঘন করলে চ্যানেলের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নিতে পারে ইউটিউব।

২. সমাজে অশান্তি সৃষ্টি করে বা সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি নষ্ট করে এমন ভিডিও কখনোই আপলোড করবেন না। এ ধরনের ভিডিও যে সব চ্যানেলে আপলোড হয় সেই সব চ্যানেলের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেয় ইউটিউব।

৩. মাসে একটি বা দুটি ভিডিও নয়, নিয়মিত ভিডিও আপলোড করুন আপনার চ্যানেলে। আবার একবারে ৩-৪টি ভিডিও আপলোড না করে নিয়মিত সময়ের ব্যবধানে ভিডিও আপলোড করুন। যেমন ধরুন আপনি যদি মাসে ১০টি ভিডিও আপলোড করতে চান তবে একবারে সবগুলো ভিডিও আপলোড না করে প্রতি সপ্তাহে নির্দিষ্ট ব্যবধানে দু’টি করে ভিডিও আপলোড করুন। এতে আপনার ভিডিও দ্রুত ছড়িয়ে পড়ার সম্ভাবনা বাড়বে।

৪. ভিডিও রেকর্ড করার সময় দর্শকদের আপনার ভিডিওতে লাইক, কমেন্ট করার অনুরোধ করুন। সাবস্ক্রাইব করার জন্যও বলুন। বেশি মানুষ আপনার ভিডিওতে লাইক, কমেন্ট করলে অথবা চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করলে ইউটিউব দ্রুত আপনার ভিডিও ছড়িয়ে দিতে সাহায্য করবে। 

সোনালীনিউজ/এমএএইচ

Wordbridge School
Sonali IT Pharmacy Managment System