• ঢাকা
  • শুক্রবার, ০৩ ডিসেম্বর, ২০২১, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

ওমানকে হারিয়ে স্বপ্ন বাঁচিয়ে রাখল বাংলাদেশ


ক্রীড়া ডেস্ক অক্টোবর ১৯, ২০২১, ১১:৫৮ পিএম
ওমানকে হারিয়ে স্বপ্ন বাঁচিয়ে রাখল বাংলাদেশ

ঢাকা: বেশি চাপে থাকলে ভালো করে বাংলাদেশ। এই কথাটি আবারো প্রমাণ করল টাইগাররা। ওমানকে হারিয়ে সুপার টুয়েলভের আশা বাঁচিয়ে রেখেছে মাহদুল্লাহর দল। বাঁচা-মরার লড়াইয়ে ওমানকে ২৬ রানে হারিয়েছে টাইগাররা। ১৫৪ রানের লক্ষ্য তাড়ায় ওমানের ইনিংস থেমেছে ১২৭ রানে। 

চোখ রাঙিয়েছেন যতীন্দর সিং। এর আগে কাশ্যপ প্রজাপতি। ক্যাচ মিস চাপ বাড়িয়েছে আরও। তবে সময়মতো ব্রেক থ্রু দিয়েছেন সাকিব আল হাসান, মোস্তাফিজুর রহমান। আঁটসাঁট বোলিং করেছেন মেহেদী হাসান। শেষ পর্যন্ত ওমান থেমেছে আগে ভাগেই। ২৬ রানের জয়ে সুপার টুয়েলভে যাওয়ার আশা টিকিয়ে রেখেছে মাহমুদউল্লাহর দল।

জয়ের কাছে এসে শরীরী ভাষাও বদলে যায় বাংলাদেশের। এর সর্বশেষ দৃষ্টান্ত রাখলেন নুরুল হাসান। ডানদিকে ঝাঁপিয়ে দারুন একটা ক্যাচ নিয়েছেন বাংলাদেশ উইকেটকিপার। মোস্তাফিজের বলে জোরের ওপর ব্যাট চালিয়ে নুরুলের হাতে ক্যাচ দিয়েছেন কলিমউল্লাহ।

এক বল পর মোস্তাফিজ নিয়েছেন নিজের চতুর্থ উইকেট, এবার এক্সট্রা কাভারে মুশফিকের হাতে ক্যাচ দিয়েছেন ফায়াজ বাট। 

পরপর দুই বল, সাকিবের বলে মাহমুদউল্লাহর দুই ক্যাচে জয়ের আরও কাছে পৌছে যায় বাংলাদেশ। আয়ান খানের পর লং-অফে ক্যাচ দিয়েছেন নাসিম খুশি। সাকিব ৪ ওভারের স্পেল শেষ করেন ২৮ রান দিয়ে ৩ উইকেট নিয়ে। স্কটল্যান্ডের কাছে ৬ রানে হারের পর আজ (মঙ্গলবার) ওমানের বিপক্ষে হারলেই বিশ্বকাপ যাত্রা থমকে যেত টাইগারদের। সেই শঙ্কাও জেগেছিল। শেষপর্যন্ত রক্ষা লাল-সবুজের প্রতিনিধিদের। ম্যাচে ওমানকে ২৬ রানে হারিয়ে বিশ্বকাপে টিকে রইলো টাইগাররা।

সুপার টুয়েলভের টিকিট পেতে বাঁচা-মরার ম্যাচে ওমানের বিপক্ষে আজ জিততেই হতো বাংলাদেশ দলকে। জিতেও যে নিশ্চিত হয়েছে পরবর্তী রাউন্ড, সেটিও নয়। আশা বেঁচে থাকল মাত্র। সমীকরণ মেলাতে আগে ব্যাট করে স্কোর বোর্ডে ১৫৩ রানের সংগ্রহ পায় টাইগাররা। সে লক্ষ্য টপকাতে নেমে উড়ন্ত শুরু ওমানের। তাসকিন আহমেদের করা প্রথম ওভার থেকেই তুলে নেয় ১২ রান। 

দ্বিতীয় ওভারে ওপেনার আকিব ইলিয়াসকে ৬ রানে ফেরান মুস্তাফিজ। এরপর টাইগার বোলারদের উপর আরো আগ্রাসী ওমানের ব্যাটসম্যানরা। ইনিংসের ষষ্ঠ ওভারে মুস্তাফিজের করা প্রথম বলটি উড়িয়ে বাউন্ডারির বাইরে মারতে চেয়েছিলেন যতিন্দর, তবে ব্যাটে-বলে ভালো সংযোগ হয়নি। সেটি দৌড়ে এসে তালুবন্দি করার চেষ্টা করেন মাহমুদউল্লাহ। কিন্তু বলটি ফসকে হাত থেকে মাটিতে পড়ে যায়। 

২ বল পরেই কাশাপ প্রজাপতিকে তুলে নেন মোস্তাফিজ। ২১ রান করে সাজঘরের পথ ধরেন এই ব্যাটসম্যান। ইনিংসের ১২তম ওভারে অধিনায়ক জিসান ১২ রান করে আউট হলে খানিক চাপে পড়ে ওমান। একপ্রান্ত আগলে রেখে রানের চাকা সচল রাখা যতিন্দর ফেরেন এর পরেই। সাকিবের বলে লিটনের হাতে ক্যাচ দেন ৩৩ বলে ৪০ রান করে।

সোনালীনিউজ/এআর

Haque Milk Chocolate Digestive Biscuit
Wordbridge School
Sonali IT Pharmacy Managment System