• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ২১ মে, ২০২৪, ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

ইউপি সদস্যকে গ্রেফতারের দাবিতে মানববন্ধন


লালমনিরহাট প্রতিনিধি এপ্রিল ২২, ২০২৪, ০৫:৩৫ পিএম
ইউপি সদস্যকে গ্রেফতারের দাবিতে মানববন্ধন

লালমনিরহাট: যুবলীগ কর্মীর পায়ের রগ কাটার ঘটনায় লালমনিরহাটের কালীগঞ্জ উপজেলার কাকিনা ইউনিয়নের এজাহারভুক্ত আসামি রমজান আলী নামের এক ইউপি সদস্যকে  গ্রেফতার ও বহিষ্কারের দাবিতে মানববন্ধন করেছে এলাকাবাসী।
 
সোমবার (২২ এপ্রিল) দুপুরে উপজেলা পরিষদ চত্বরে ঘণ্টাব্যাপী এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। মানববন্ধনে আহত যুবলীগ কর্মীর পরিবারের সদস্য ও এলাকার শতাধিক নারী পুরুষ অংশ নেন।

অভিযুক্ত রমজান আলী কাকিনা ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ড সদস্য ও ইউনিয়ন যুবদলের সহ-সভাপতি। আহত যুবলীগ কর্মী আয়নাল হক একই  ইউনিয়নের মহিষামুড়ি এলাকার আজিজুল ইসলামের ছেলে। সে ইউনিয়ন যুবলীগের একজন সক্রিয় কর্মী। মানববন্ধন শেষে এলাকাবাসী নারী পুরুষ ইউপি সদস্যের বিচারের দাবীতে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নিকট স্মারক লিপি পেশ করে।

জানাগেছে, অভিযুক্ত ইউপি সদস্য রমজান আলী প্রভাবখাটিয়ে সরকারী ঘর টাকার বিনিময়ে ভুমিহীন মানুষের নিকট বিক্রি করে আসছে। গত ১৫ এপ্রিল ঘর না পাওয়া একজনের টাকা ফেরত চাওয়ায় রমজান বাহিনী ক্ষিপ্ত হয়ে যুবলীগ কর্মী আয়নাল হকের উপর হামলা করে তাকে হাতুরি পেটা ও বল্লম দিয়ে খুঁচিয়ে এবং ধারালো অস্ত্র দিয়ে তার পায়ের রগ কেটে দেয়। বর্তমানে সে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

আহত আয়নাল হক এর স্ত্রী মোছাঃ মুন্নী বেগম বলেন, 'রমজান মেম্বার আমার স্বামীকে কুপিয়ে আহত করে পায়ের রগ কেটে দিয়েও এখন সে প্রকাশ্যে ঘুরে বেড়াচ্ছে। লিখিত অভিযোগ দেওয়ার এক সপ্তাহ পার হলেও পুলিশ তাকে গ্রেফতার করতে পারছে না'।

আহত যুবলীগ কর্মীর বাবা আজিজুল ইসলাম বলেন, 'আমরা জন্মগত ভাবে আওয়ামী লীগ করি। কিন্তু বিএনপি নেতা রমজান মেম্বার অন্যায় ভাবে আমার ছেলেকে কুপিয়ে আহত করেছে। আমার ছেলে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ছে। কালীগঞ্জ থানায় গত ১৭ এপ্রিল লিখিত এজাহার দিয়েছি। সপ্তাহ পার হয়ে গেলেও পুলিশ রমজান মেম্বারকে গ্রেফতার করেনি। অবিলম্বে তিনি অভিযুক্ত রমজান মেম্বারকে গ্রেফতার ও তাকে ইউপি সদস্য পদ থেকে বহিষ্কারের দাবি জানান'। 

মানববন্ধনে বক্তব্যে এলাকাবাসীরা বলেন, রমজান আলী ইউপি সদস্য নির্বাচিত হওয়ার পর থেকে তিস্তা চর এলাকায় একটি সন্ত্রাসী বাহিনী  গড়ে তুলেছে। যা এলাকায় রমজান বাহিনী নামে পরিচিত। এই রমজান বাহিনী চরের জমিদখলসহ নানা অনিয়মের সঙ্গে জড়িত।  সম্প্রতি ইউপি সদস্য রমজান আলী এক ভুক্তভোগী পরিবারকে ভয় দেখিয়ে একটি ধর্ষণ মামলার ঘটনা ধামাচাপা দিয়েছে বলে তারা  অভিযোগ করেন। তারা বলেন, এই বাহিনীর সাহায্যে সে রাতের আধারে গরিব অসহায় মানুষের ভোগদখলে থাকা খাস জমি দখল করে আসছে। সপ্তাহ খানেক আগেও এক অসহায় গরিব মানুষের বাড়িতে আগুন লাগিয়ে দিয়ে ভিটা ছাড়া করে ভোর রাতে সে জমি দখলে নিয়েছে। মানববন্ধন থেকে তারা অভিযুক্ত ইউপি সদস্য রমজান আলীকে গ্রেফতার ও তার ইউপি সদস্য পদ থেকে বহিষ্কারের দাবি জানান।

এমএস

Wordbridge School
Link copied!