• ঢাকা
  • বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল, ২০২৪, ১২ বৈশাখ ১৪৩১

৫২৩ রানের ম্যাচে হারল মুম্বাই, হার্দিককে ধুয়ে দিলেন সাবেকরা 


ক্রীড়া ডেস্ক মার্চ ২৮, ২০২৪, ০১:৪২ পিএম
৫২৩ রানের ম্যাচে হারল মুম্বাই, হার্দিককে ধুয়ে দিলেন সাবেকরা 

ঢাকা: আইপিএলে গতকাল রাতে মুম্বাই-হায়দরাবাদ ম্যাচে যা ঘটেছে তাতে শুধু রেকর্ডের পর রেকর্ডই হয়েছে। ২৭৭ রান তাড়ায় ১০ ওভারেই ১৪১ রান তুলে ফেলেছিল মুম্বাই ইন্ডিয়ানস। অর্ধেক ওভারে অর্ধেকের বেশি রান তোলা শেষ। 

ম্যাচটা জয়ের পথে ভালোমতোই ছিল হার্দিক পান্ডিয়ার দল। তবে পরের দশ ওভারে একই গতি আর ধরে রাখতে পারেনি মুম্বাই। শেষ ৬০ বলে ১০৫ রান তুলে থামতে হয়েছে ২৪৬ রানে। পান্ডিয়ার দল সানরাইজার্স হায়দরাবাদের কাছে হেরেছে ৩১ রানে।

তবে ম্যাচ শেষ পর্যন্ত যে-ই জিতে থাকুক, আইপিএলে আজ ব্যাটিং-টক্করের দুর্দান্ত এক ম্যাচই দেখেছেন দর্শকেরা। যে ম্যাচে হয়েছে একের পর এক রেকর্ড। শুধু আইপিএল রেকর্ড নয়, বিশ্বজুড়ে স্বীকৃত টি–টোয়েন্টি ক্রিকেটের রেকর্ড। 

এক ম্যাচে সবচেয়ে বেশি রান, আইপিএলে দলীয় সর্বোচ্চ রান, কয়েক ওভারের ব্যবধানে একজনের রেকর্ড আরেকজনের ভেঙে দেওয়া-এমন অনেক কিছুই দেখেছে হায়দরাবাদ-মুম্বাইয়ের ম্যাচ।

আগে ব্যাট করে ২০ ওভারে ৩ উইকেটে ২৭৭ রান তোলে হায়দরাবাদ। যা আইপিএল ইতিহাসে কোনো দলের সর্বোচ্চ। এর আগে দলীয় সর্বোচ্চ ইনিংস ছিল রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুর ২৬৩/৫। ২০১৩ সালে পুনে ওয়ারিয়র্সের বিপক্ষে, যে ম্যাচে ৬৬ বলে ১৭৫ রানের ইনিংস খেলেছিলেন ক্রিস গেইল।

হায়দরাবাদের ২৭৭ রান তাড়ায় মুম্বাইয়ের ইনিংস থামে ২০ ওভারে ৫ উইকেটে ২৪৬ রানে। দুই দল মিলে উঠেছে ৫২৩ রান। এটি আইপিএলে এক ম্যাচে সর্বোচ্চ। আগের সর্বোচ্চ ছিল ২০১০ সালে চেন্নাই-রাজস্থান ম্যাচে ৪৬৯ রান।

রেকর্ডের ছড়াছড়ির এই ম্যাচে মুম্বাইয়ের অধিনায়ক হার্দিক পান্ডিয়ার সমালোচনায় মুখর সাবেক ক্রিকেটাররা। মুম্বাই ইন্ডিয়ানসের প্রথম ম্যাচে জাসপ্রিত বুমরাকে বোলিং ওপেন করতে না দেখে ধারাভাষ্যকক্ষে অবাক হয়েছিলেন কেভিন পিটারসেন ও সুনীল গাভাস্কার। বুমরার বদলে হার্দিক পান্ডিয়া কেন প্রথম ওভার করতে এসেছেন সেদিন বুঝতে পারছিলেন না দুই সাবেক ব্যাটার। 

ইরফান পাঠান তো অনুযোগের সুরে সামাজিক মাধ্যমে পোস্টই দিলেন এভাবে, ‘বুমরা কোথায়?’ ভারতের সাবেক বাঁহাতি পেসারের প্রশ্নটা যে হার্দিককে উদ্দেশ্য করেই ছিল সেটা না বললেও চলে। পরে গুজরাট টাইটানসের বিপক্ষে মুম্বাই ৬ রানে হারলে হার্দিকের অধিনায়কত্বের সমালোচনা আরও গতি পায়। 

হার্দিকের নেতৃত্বকে সাধারণ মানের বলেও আখ্যা দিয়েছেন ইরফান। সামাজিক মাধ্যমে ভারতের সাবেক বাঁহাতি পেসার লিখেছেন, ‘আমাকে বলতেই হচ্ছে, হার্দিকের অধিনায়কত্ব সাধারণ মানের। যখন প্রতিপক্ষের ব্যাটাররা ধ্বংসলীলা চালাচ্ছে তখন বুমরাকে দূরে সরে রাখাটা আমার বোধগম্যের বাইরে।’ 

এআর

Wordbridge School
Link copied!