• ঢাকা
  • বুধবার, ২৮ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ১৩ আশ্বিন ১৪২৯

ডাক্তারের অদক্ষতায় নবজাতকের মৃত্যু


ঈদগাঁও (কক্সবাজার) প্রতিনিধি  আগস্ট ১৩, ২০২২, ০৫:৪৬ পিএম
ডাক্তারের অদক্ষতায় নবজাতকের মৃত্যু

ফাইল ছবি

কক্সবাজার: কক্সবাজারের ঈদগাঁওতে কর্মরত ডাক্তারের অদক্ষতা ও অবহেলায় এক নবজাতকের মৃত্যুর অভিযোগ পাওয়া গেছে। ঈদগাহ মডেল হাসপাতাল এন্ড ডায়াবেটিস কেয়ার সেন্টারে অপ্রীতিকর এ ঘটনা ঘটেছে। সংগঠিত ঘটনায় নবজাতকের স্বজনদের মাঝে তীব্র উত্তেজনা দেখা দেয়। তবে হাসপাতালটির কর্তৃপক্ষের পক্ষ থেকে এ ঘটনার জন্য দুঃখ প্রকাশ করা হয়েছে।

জানা গেছে, ইসলামাবাদ ইউনিয়নের পশ্চিম ইউছুপেরখীল এলাকার দুবাই প্রবাসী তাজুল ইসলাম মিন্টুর স্ত্রী পারেচা আক্তার লাকির (৩০) প্রসব বেদনা উঠলে তাকে সকাল সাড়ে দশটার দিকে ওই হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডাঃ গাজী সাঈদা ইয়াছমিন পলির তত্ত্বাবধানে তার চিকিৎসা কার্যক্রম চলে। একপর্যায়ে মহিলাকে ডেলিভারি ওয়ার্ডে নিয়ে যাওয়া হয়।

রোগীর স্বজনদের অভিযোগ, কর্তব্যরত মহিলা ডাক্তার টানা হেঁচড়া করলে বাচ্চা প্রসব করালে নবজাতকের শরীরে বিভিন্ন স্থানে জখম প্রাপ্ত হয়। ভূমিষ্ঠের আধঘন্টা পর শিশুটি মারা যায়। এতে উপস্থিত স্বজনদের মাঝে ব্যাপক ক্ষোভের সৃষ্টি হয়। তারা কর্মরত ডাক্তারের বিরুদ্ধে অদক্ষতা ও অবহেলার অভিযোগ আনেন।

খবর পেয়ে হাসপাতালটির উদ্যোক্তা ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক ডাক্তার মোঃ ইউছুফ আলী লামা থেকে তড়িঘড়ি করে এসে করে উপস্থিত স্বজনদের কাছে অনাকাঙ্ক্ষিত এ ঘটনার জন্য বারবার দুঃখ প্রকাশ করেন।

তিনি স্বজনদের জানান যে, কর্মরত ডাক্তার যথাসময়ে এ সংক্রান্ত বিষয়গুলো রোগীর স্বজনদের কাউন্সেলিং করেননি এবং তাকে ও নার্সিং ইনচার্জকে জানান নি। তারা জানলে এ ধরনের ঘটনা ঘটতো না।

হাসপাতালের অফিস কক্ষে এ সংক্রান্ত বৈঠকে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন শাহনেওয়াজ চৌধুরী মিন্টু, মাস্টার ইমরান আলী চৌধুরী, হাসপাতালের ম্যানেজার আবু বক্কর সিদ্দিক, স্থানীয় সাংবাদিক, শিক্ষক ও রোগীর আত্মীয়-স্বজনসহ অনেকে।

নবজাতকের আত্মীয় শিক্ষক মাইনুদ্দিন জানান, প্রসূতি মহিলাটি বারবার সিজার করার কথা বললেও কর্মরত ডাক্তার তাতে কোন কর্ণপাত করেননি। বাচ্চা প্রসবের সময় টানাহেঁচড়া করে দ্রুত বের করতে চাওয়ায় নবজাতকটির শরীরে বিভিন্ন রকমের সৃষ্টি হয়।

সোনালীনিউজ/আরকে/এসআই

Wordbridge School
Sonali IT Pharmacy Managment System