• ঢাকা
  • শনিবার, ০২ মার্চ, ২০২৪, ১৭ ফাল্গুন ১৪৩০

গোবিন্দগঞ্জে নিখোঁজ দুই বান্ধবী ঢাকা থেকে উদ্ধার


গোবিন্দগঞ্জ (গাইবান্ধা) প্রতিনিধি জুন ১৭, ২০২৩, ০৯:৫২ পিএম
গোবিন্দগঞ্জে নিখোঁজ দুই বান্ধবী ঢাকা থেকে উদ্ধার

উদ্ধার হওয়া লিয়া খাতুন ও হিমা খাতুন।

গাইবান্ধা: গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জের এসএসসি পরীক্ষা দিয়ে উধাও দুই বান্ধবীকে ১৭ দিন পর উদ্ধার করেছে পুলিশ। শনিবার (১৭ জুন) সকালে ঢাকার আশুলিয়া এলাকা থেকে প্রযুক্তি ব্যবহার করে উদ্ধারের পর বিকেলে তাদের পরিবারের কাছে হস্তান্তর করেছে গোবিন্দগঞ্জ থানার পুলিশ। 

গত ৩১ মে এসএসসি পরীক্ষা দিয়ে তারা নিখোঁজ হয়েছিলেন। তারা স্বাবলম্বী হওয়ার উদ্দেশ্যেই বাড়ি ছেড়েছিল দাবী করেছে পুলিশ।

নিখোঁজ দুই তরুণীর একজন উপজেলার কোচাশহর ইউনিয়নের দক্ষিণ ছয়ঘড়িয়া (পাছপাড়া) গ্রামের মেয়ে লিয়া খাতুনের (১৮) পিতা বাবু মিয়া জানান, ‘তার মেয়ে ও একই ইউনিয়নের সিংগা গ্রামের আব্দুল হামিদ মিয়ার মেয়ে হিমা খাতুন (১৭) স্থানীয় ছয়ঘড়িয়া দ্বিমুখী উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এবার এসএসসি পরীক্ষার্থী ছিল। গত ৩১ মে মহিমাগঞ্জ উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্র থেকে শেষ পরীক্ষা দিয়ে কয়েকজন বান্ধবীসহ একটি অটোভ্যানযোগে বাড়ির উদ্দেশ্যে রওনা হয়। কিন্তু তারা বাড়িতে ফিরে না আসায় খোঁজাখুঁজি শুরু হয়। না পাওয়ায় গত ২ জুন গোবিন্দগঞ্জ থানায় পৃথক দুটি সাধারণ ডায়রি (জিডি) করা হয়। এরই ফলশ্রুতিতে গোবিন্দগঞ্জ থানা পুলিশ ফোন ট্রাকিংসহ প্রযুক্তির ব্যবহার করে তাদের অবস্থান চিহ্নিত করে। আজ শনিবার দুজনকেই উদ্ধার করে আমাদের হাতে তুলে দেন।’

অভিযানে নেতৃত্ব দেয়া গোবিন্দগঞ্জ থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) দীপক কুমার জানান, ‘প্রাথমিকভাবে ওই দুই বান্ধবীকে অপহরণের কোন আলামত পাওয়া যায়নি। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা স্বাবলম্বী হওয়ার উদ্দেশ্যে বাড়ি ছেড়ে ঢাকায় গিয়ে পোশাক কারখানায় চাকুরি নেয়ার চেষ্টা করছিল বলে জানিয়েছে।’

গোবিন্দগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ ইজার উদ্দিন জানান,  ‘উদ্ধার হওয়া দুই বান্ধবী আত্মনির্ভরতা অর্জনের জন্য পরিবারের কাছে অনুমতি চেয়ে না পেয়ে কাউকে না জানিয়ে ঢাকায় যায়। সেখানে তারা দুজন দিলে একটি রুম ভাড়া নিয়ে বসবাস শুরু করে কাজের অনুসন্ধান করতে থাকে। ইতিমধ্যে একজন সেখানকার একটি তৈরী পোষাক কারখানায় চাকরি শুরু করে। যেহেতু তাদের বয়স কম সেহেতু অভিভাবকদের আবেদনের প্রেক্ষিতে উদ্ধার করে পরিবারের কাছে বুঝিয়ে দেয়া হয়েছে।’

সোনালীনিউজ/আইএ

Wordbridge School
Link copied!