• ঢাকা
  • সোমবার, ২২ এপ্রিল, ২০২৪, ৮ বৈশাখ ১৪৩১

বেইলি রোডের আগুনে ফিলিপাইনের নাগরিক মা-মেয়ে নিহত


নিজস্ব প্রতিবেদক মার্চ ১, ২০২৪, ০৯:২৫ পিএম
বেইলি রোডের আগুনে ফিলিপাইনের নাগরিক মা-মেয়ে নিহত

ঢাকা: রাজধানীর বেইলি রোডের বহুতল ভবনে ভয়াবহ আগুনের ঘটনায় ৪৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। এরমধ্যে ৪০ জনের মরদেহ হস্তান্তর করা হয়েছে।

নিহতদের মধ্যে হবিগঞ্জের বাসিন্দা ও ফিলিপাইনের নাগরিক দুই মা-মেয়ে রয়েছেন। হবিগঞ্জ জেলা পুলিশের গোয়েন্দা শাখা শুক্রবার (১ মার্চ) রাতে গণমাধ্যমকে এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

নিহতরা হলেন- হবিগঞ্জের মাধবপুর উপজেলায় বানেশ্বরপুর গ্রামের পোল্যান্ড প্রবাসী উত্তম কুমার রায়ের স্ত্রী রুবি রায় (৪০) ও মেয়ে প্রিয়াংকা রায় (১৭)।  

আরও পড়ুন<<>>মৃত্যু নিশ্চিত জেনে ফোনে মায়ের সঙ্গে কালেমা পড়ে নেন রকি

নিহত রুবি ফিলিপাইনের নাগরিক। প্রায় ২৮ বছর আগে বাংলাদেশি নাগরিক উত্তম কুমারের সঙ্গে তার বিয়ে হয় বলে জানা গেছে।  

নিহতদের পরিবারের বরাত দিয়ে গোয়েন্দা সূত্র জানায়, বৃহস্পতিবার (২৯ ফেব্রুয়ারি) রাতে বেইলি রোডে ‘কাচ্চি ভাই রেস্তোরাঁ’ থেকে খাবার আনতে যান মা রুবি ও মেয়ে প্রিয়াংকা। এ সময় সেখানে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় মা-মেয়ে নিহত হন।  

আরও পড়ুন<<>>লাশ পুড়ে অঙ্গার, হাতঘড়ি দেখে প্রকৌশলী মিনহাজকে শনাক্ত করল পরিবার  

নিহত প্রিয়াংকার বড় চাচা বিষ্ণু রায় বলেন, উত্তম ১৯৯৬ সালে দক্ষিণ কোরিয়ায় একটি কোম্পানিতে প্রকৌশলী হিসেবে কর্মরত থাকা অবস্থায় সেখানে ফিলিপাইনের নাগরিক রুবি রায়কে বিয়ে করেন। পরবর্তী সময়ে উত্তম পোল্যান্ড যান। এ সময় তিনি স্ত্রী-কন্যাকে দেশে রেখে গিয়েছিলেন। মা-মেয়ে রাজধানীর মালিবাগে থাকতেন। মৃত্যুর খবর পেয়ে উত্তম রায় পোল্যান্ড থেকে বাংলাদেশের উদ্দেশে রওনা হয়েছেন।

আরও পড়ুন<<>>গিয়েছিলেন বিদেশ যাওয়ার শপিংয়ে, মৃত্যু তাদের ডেকে নিলো কাচ্চি ভাইয়ে!

আইএ

Wordbridge School
Link copied!