• ঢাকা
  • বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল, ২০২৪, ১২ বৈশাখ ১৪৩১

হিজাব না পড়ায় ৬ শিক্ষার্থীর চুল কেটে বরখাস্ত শিক্ষিকা


মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি ফেব্রুয়ারি ২৯, ২০২৪, ০৩:২৭ পিএম
হিজাব না পড়ায় ৬ শিক্ষার্থীর চুল কেটে বরখাস্ত শিক্ষিকা

মুন্সীগঞ্জ: হিজাব না পরায় মুন্সীগঞ্জের সিরাজদীখানে সৈয়দপুর আব্দুর রহমান স্কুল এন্ড কলেজেন ছয় শিক্ষার্থীর চুল কেটে দেওয়ার ঘটনায় অভিযুক্ত শিক্ষিকা রুনিয়া সরকারকে সাময়িক বহিষ্কার করা হয়েছে। এ ছাড়া এ ঘটনায় তিন সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২৯ ফেব্রুয়ারি) উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. মিজানুর রহমান ভূইয়া এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে গতকাল বুধবার উপজেলার সৈয়দপুর আব্দুর রহমান স্কুল এন্ড কলেজের বিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষিকা রুনিয়া সরকার স্কুলের সপ্তম শ্রেণির ছয় ছাত্রীর চুল কেটে দেন। বিষয়টি নিয়ে বিভিন্ন মিডিয়াতে সংবাদ প্রকাশ হলে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে বিস্তর সমালোচনা চলতে থাকে।

এ বিষয়ে শিক্ষার্থীদের অভিভাবকরা বলেন, ‌‘আমাদের মেয়েদের সঙ্গে যে ঘটনা ঘটেছে এ ধরনের ঘটনা যেন আর কখনো না ঘটে। আমরা সঠিক তদন্তের মাধ্যমে এর দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করছি।’

জানা গেছে, বৃহস্পতিবার সিরাজদীখান উপজেলা ইউএনও সাব্বির আহমেদসহ ওই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পরিচালনা পরিষদের জরুরি সভায় মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. মিজানুর রহমান ভূইয়াকে প্রধান করে তিন সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি করা হয়েছে। 

জানতে চাইলে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সাব্বির আহমেদ বলেন, ‘জেলা প্রশাসকের নির্দেশনা মতে আমরা শিক্ষার্থী, অভিভাবক, স্থানীয় জনপ্রতিনিধি, বিদ্যালয় ম্যানেজিং কমিটি সভাপতি ও সদস্যসহ সবার সঙ্গে কথা বলে ব্যবস্থা গ্রহণ করেছি। সকালে বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির একটি জরুরি সভায় তিন সদস্য বিশিষ্ট একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে।’

আব্দুর রহমান স্কুল এন্ড কলেজের পরিচালনা পরিষদের সভাপতি ইঞ্জিনয়ার গোলাম মাহমুদ বলেন, ‘বিষয়টি খুবই দুঃখজনক। তদন্ত কমিটি হয়েছে, জড়িত শিক্ষিকার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

এমএস

Wordbridge School
Link copied!