• ঢাকা
  • শুক্রবার, ০৯ ডিসেম্বর, ২০২২, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৯

বিশ্ববিখ্যাত অক্সফোর্ড ইউনিভার্সিটিতে সুযোগ পেলেন  সিলেটি বৃটিশ সাইমুর রহমান


কবির আল মাহমুদ: স্পেন  আগস্ট ২৪, ২০২২, ০১:১৬ পিএম
বিশ্ববিখ্যাত অক্সফোর্ড ইউনিভার্সিটিতে সুযোগ পেলেন  সিলেটি বৃটিশ সাইমুর রহমান

ঢাকা: বৃটেনের অক্সফোর্ড শহরে অবস্থিত বর্তমান বিশ্বের শ্রেষ্ঠ বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্যতম অক্সফোর্ড ইউনিভার্সিটি। বিশ্ববিদ্যালয়টিতে বৃটিশসহ যেকোনো দেশের ছাত্রদের জন্য সুযোগ পাওয়া ভাগ্যের বিষয়। কিন্তু সেই ভাগ্যকে বিজয় করে বাংলাদেশি ছাত্ররা প্রতি বছর অক্সফোর্ড ইউনিভার্সিটিতে সুযোগ পাচ্ছেন। সময় যত গড়াচ্ছে, বাংলাদেশিদের তালিকা ততই দীর্ঘ হচ্ছে। সেই দীর্ঘ তালিকায় এবার নাম লিখিয়েছেন বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলার সাইমুর রহমান। তিনি এবারের ‘এ’ লেভেল পরীক্ষায় লন্ডন একাডেমি অফ এক্সসিলেন্স (এলএই) থেকে ফিজিক্স, মেথডস, ফারদার মেথ এবং ক্যামেস্ট্রি বিষয় নিয়ে লেখাপড়া করে সবক’টিতেই এ স্টার লাভ করেন। এ ছাড়া সাইমুর ইয়ার ১২’এ ইপিকিউতে (ডেজার্টেশন অন কোয়ান্টাম কম্পিউটিং) এ স্টার এবং ইয়ার ১৩’এ  ওয়ান অফ দ্যা বেস্ট স্টুডেন্ট অ্যাওয়ার্ড লাভ করেন।

করোনা মহামারির পর প্রথম সরাসরি এ লেভেল পরীক্ষার ফল ইংল্যান্ড, ওয়েলস ও নর্দার্ন আয়ারল্যান্ডে গত ১৮ আগস্ট ঘোষণা করা হয়। এবারের পরীক্ষায় টপ গ্রেডধারীদের সংখ্যা কমলেও বৃটিশ বাংলাদেশিরা আশা জাগানিয়া ফলাফল করেছেন। ফলাফল হাতে পেয়ে সাইমুর কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন আল্লাহর প্রতি। এ ছাড়াও স্কুলের শিক্ষক ও বাবা- মা’র প্রতি।

ভালো ফলাফল করতে নিজের একান্ত চেষ্টা ও একাগ্রতা প্রয়োজন বলে তিনি মনে করেন। সাইমুর ফিজিক্সে তার শিক্ষালব্ধ জ্ঞান কমিউনিটি ও মানবতার সেবায় কাজে লাগাতে চান ।

সাইমুরের পিতা কমিউনিটির পরিচিত মুখ শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক সহকারী অধ্যাপক ও লন্ডনের মার্টন কলেজের সাবেক কেমিস্ট্রি টিচার ডক্টর মুজিবুর রহমান ও মাতা লন্ডনের জর্জ গ্রিন স্কুলের সাবেক সায়েন্স টিচার সাবিনা ইয়াসমিন বখত। তাদের দুই সন্তানের মধ্যে সাইমুর বড় এবং ছোট ছেলে রাফি রহমান এবার ইয়ার ১১’এ পড়ছে। সাইমুরের পিতামাতা তার ফলাফলে মহান আল্লাহর কাছে শুকরিয়া আদায় করেন। 

প্রসঙ্গত বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত সাইমুর রহমান জিসিএসইতে লন্ডনের বেক্টনে অবস্থিত কিংসফোর্ড কমিউনিটি স্কুল থেকে সাতটি বিষয়ে এ ডাবল স্টার (৯) এবং তিনটি বিষয়ে এ স্টার (৮) পেয়ে কৃতিত্বের সঙ্গে জিসিএসই পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়েছিলেন।

সোনালীনিউজ/কেএল/এসআই

Wordbridge School