• ঢাকা
  • রবিবার, ১৯ মে, ২০২৪, ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

‘রাজকুমার’-এর আশানুরূপ সাফল্য না পাওয়ায় প্রযোজনা সংস্থায় নেই শাকিব!


বিনোদন প্রতিবেদক মে ১৫, ২০২৪, ০৫:৫৪ পিএম
‘রাজকুমার’-এর আশানুরূপ সাফল্য না পাওয়ায় প্রযোজনা সংস্থায় নেই শাকিব!

ঢাকা: গেল বছর ঈদে মুক্তি পায় আফরান নিশো অভিনীত সিনেমা ‘সুড়ঙ্গ’। আলফা আই নামের একটি প্রতিষ্ঠান থেকে নির্মিত এই সিনেমা দিয়েই প্রমাণ করেছেন বড় পর্দার জন্যও ফিট তিনি।

অন্যদিকে একই প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান শাকিব খানকে নিয়ে বানাচ্ছেন ‘তুফান’ নামের একটি সিনেমা। এটি নির্মাণে দেশি প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে অর্থলগ্নি করেছেন কলকাতার এসভিএফ-ও। আগামী কোরবানি ঈদে মুক্তির জন্য নির্মিত হচ্ছে সিনেমাটি।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে এই সিনেমা নিয়ে যখন আলোচনা-সমালোচনা তুঙ্গে, ঠিক সে সময় জানা গেল বাংলাদেশে যৌথভাবে একটি প্রতিষ্ঠান খুলেছে আলফা আই ও এসভিএফ। ইতোমধ্যে ওই প্রতিষ্ঠান থেকে দুটি সিনেমা নির্মাণের ঘোষণা দেওয়া হয়েছে। সিনেমা দুটিতে নায়ক থাকবেন আফরান নিশো।

যে প্রতিষ্ঠান থেকে শাকিবকে নিয়ে বিগ বাজেটের সিনেমা নির্মিত হচ্ছে এবং এই মুহূর্তে বাংলা চলচ্চিত্রের ভরসার জায়গায় রয়েছে তার নাম, সেখানে তাকে বাদ দিয়ে নতুন সিনেমায় কেন নিশোকে নেওয়া হলো বিষয়টি নিয়ে প্রশ্ন জেগেছে সিনেপ্রেমীদের মনে।

নিশো দুই সিনেমায় চুক্তিবদ্ধ হওয়ার পর এসভিএফ আলফা-আই এন্টারটেইনমেন্ট লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শাহরিয়ার শাকিল গণমাধ্যমে বলেন, আফরান নিশোর বড় পর্দায় ফিরে আসা আমাদের জন্য একটি রোমাঞ্চকর অধ্যায়ের সূচনা করছে। সিনেমাগুলোতে যে তিনি অভিনয়ের দ্যুতি ছড়াবেন, সেটা দেখার জন্য আমরা মুখিয়ে আছি। এখানেও নিশোরই প্রশংসা করেছেন তিনি।

অনেকেই বলছেন, গেল ঈদে শাকিব খান অভিনীত ‘রাজকুমার’-এর আশানুরূপ সাফল্য না পাওয়ায় ‘তুফান’ নিয়েও সন্দিহান প্রযোজনা সংস্থা। কারণ, শুধু শাকিব ভক্ত দিয়েই সিনেমা হিট করানো যাবে না। লাগবে সাধারণ দর্শকের উপস্থিতি।

আর ‘তুফান’র টিজার দেখে যে ধরনের সিনেমা মনে হয়েছে, সেখানে সাধারণ দর্শকদের উপস্থিতি যে আহামরি হবে না সেটা সহজেই ধারণা করছেন তারা। তাই হয়তো শাকিবকে নিয়ে খুব বেশি রিস্ক নিতে চাচ্ছে না এই প্রযোজনা সংস্থা। আর নিশো যেহেতু প্রথম সিনেমায় সফলতা পেয়েছে, তাই তাকে নিয়ে মাঠে যুদ্ধ করা যায়, এমনটাই হয়তো ভাবছেন অনেকে।

এএন

Wordbridge School
Link copied!